চট্টগ্রাম সোমবার, ১৫ জুলাই, ২০২৪

সর্বশেষ:

বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ মানেই বৃষ্টির হানা !

স্পোর্টস ডেস্ক

২০ জুন, ২০১৯ | ২:০১ পূর্বাহ্ণ

কাকতালীয় বটেই, অস্ট্রেলিয়ার সাথে আইসিসির কোন টুর্নামেন্ট, অর্থ্যাৎ বিশ্বকাপ কিংবা চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে বাংলাদেশের খেলা মানেই কি বৃষ্টির হানা? বৃষ্টিতে ম্যাচ পরিত্যক্ত, পন্ড বা বাতিল হয়ে যাওয়া? ইতিহাস জানাচ্ছে, গত চার বছরে আইসিসির দুটি বড় আসর বিশ্বকাপ আর চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি- দুটিতেই বাংলাদেশ আর অস্ট্রেলিয়া যে দু’বার মুখোমুখি হয়েছে, প্রতিবারই বৃষ্টি এসে হানা দিয়েছে এবং খেলা পরিত্যক্ত হয়েছে। আরেকবার অর্ধেক হওয়ার পর বৃষ্টিতে বাতিল হয়ে গেছে। প্রথমবারের ঘটনা, ২০১৫ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি অস্ট্রেলিয়ার ব্রিসবেনে। বিশ্বকাপের ম্যাচ বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয়েছে। ওই ম্যাচে একটি বলও মাঠে গড়ায়নি। এমনটি টস পর্যন্ত হয়নি। আর সর্বশেষ ২০১৭ সালে এই ইংল্যান্ডেই অনুষ্ঠিত হওয়া আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির সর্বশেষ আসরে বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ অর্ধেক হওয়ার পর বৃষ্টির হানায় বাতিল ঘোষণা করতে হয়েছে। দুই বছর পর সেই ইংল্যান্ডের মাটিতে আজ আবার অস্ট্রেলিয়ার সামনে বাংলাদেশ। এবার বিশ্বকাপের আসর। আবারও সেমিফাইনাল খেলার সম্ভাবনা আছে মাশরাফি বাহিনীর সামনে। এখন অস্ট্রেলিয়াকে হারাতে পারলেই সে সম্ভাবনা অনেক উজ্জ্বল হয়ে যাবে বাংলাদেশের। এখন প্রশ্ন হলো, আজ নটিংহ্যামে অস্ট্রেলিয়া আর বাংলাদেশের ম্যাচে বৃষ্টির সম্ভাবনা কতটা? নটিংহ্যামের সবকটি আবহাওয়া পূর্বাভাস ঘেঁটে দেখা গেছে, আজ নটিংহ্যামের আকাশে মেঘ থাকবে। তবে একদম মেঘের ঘনঘটা থাকার সম্ভাবনা কম। সারা দিনে ভারী ও টানা বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা বলা নেই। ব্রিস্টলের মত ৮০-৯০ ভাগ বৃষ্টির পূর্বাভাস নেই। পূর্ভাবাসে বৃষ্টির কথা বলা যে নেই, তাও নয়। আছে। ৩০% বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা উল্লেখ আছে আবহাওয়া রিপোর্টে। তার মানে বৃষ্টি হয়ত ম্যাচ পন্ড করার মত করে হানা দেবে না। তবে ছোটখাট হলেও একটা হুমকি আছে। এখন শেষ মুহূর্তে ওই হুমকির মাত্রা বেড়ে গেলে ভিন্ন কথা। না হয় অতি নাটকীয় পরিবর্তন না ঘটলে ব্রিস্টলের মত নটিংহ্যামের ট্রেন্টব্রিজেও বৃষ্টিতে খেলায় বিঘœ ঘটার সম্ভাবনা কম।

শেয়ার করুন