চট্টগ্রাম সোমবার, ২২ জুলাই, ২০২৪

সর্বশেষ:

একাদশে ভর্তি : ২য় আবেদনে সতর্ক না হলে ফল বিপর্যয়ের শঙ্কা

বিজ্ঞপ্তি

১১ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ | ২:৪৭ অপরাহ্ণ

২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রথম মেধাতালিকা প্রকাশের পর অনেক শিক্ষার্থীর মুখে হাসি ফুটলেও একাংশ ভুগছে হতাশায়। কেননা প্রতি বছরের মত এবারও নগরীর খ্যাতিমান সরকারি কলেজগুলোতে জিপিএ-৫ প্রাপ্তরাই ঠাঁই করে নিয়েছে। বিশেষ করে নগরীর সরকারি কলেজ সমূহের বিজ্ঞান শাখায় মোট ৩২৮৫ আসনের বিপরীতে প্রায় ৬৫,০০০ আবেদন যাচাই বাছাই করে প্রকাশিত এই ফলাফলে হাজারও শিক্ষার্থীর স্বপ্নভঙ্গ হয়েছে! এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পাওয়া প্রায় ৮৭০১ জন বিজ্ঞান শিক্ষার্থী সরকারি কোন কলেজের তালিকায় আসেনি। মেধাতালিকায় অনেকে মনোনীত হয়েছে এমন সব কলেজে যেখানে শিক্ষার পরিবেশ মান সম্পন্ন নয় বলে ভাবছেন অভিভাবকবৃন্দ।

সোমবার (১১ সেপ্টেম্বর) কাঙ্ক্ষিত কলেজে সুযোগ না পাওয়া হতাশায় মুষড়ে পড়া শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের নিয়ে দিক নির্দেশনামূলক মতবিনিময় সভার আয়োজন করেন চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজ।

সভায় নগরীর বিভিন্ন পর্যায়ের শিক্ষাবিদ, শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকগণ যুক্ত হয়ে একাদশে ভর্তি বিষয়ক নানা সমস্যা ও সমাধানে আলোচনা করেন।

আলোচনায় শিক্ষার্থীদের হতাশ না হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বিজ্ঞান শিক্ষার্থীদের জন্য নগরীর একমাত্র বিশেষায়িত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজের অধ্যক্ষ ড. জাহেদ খান।

তিনি বলেন, প্রথম আবেদনে কলেজ পছন্দক্রম নির্বাচনে এসএসসিতে শিক্ষার্থীর প্রাপ্ত গ্রেড পয়েন্ট বিবেচনায় না রাখা, কলেজের শিক্ষা পরিবেশ ও মান এবং বাসা থেকে দূরত্ব ইত্যাদি বিবেচনায় না আনার কারণে এই জটিলতার সৃষ্টি হয়েছে! তাই ২য় আবেদনে এ বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে। না বুঝে পছন্দক্রম না দিয়ে ঠাণ্ডা মাথায় বিবেচেনা করে দ্বিতীয় ধাপে আবদেন করা হবে বুদ্ধিমানের কাজ। কোনো দ্বিতীয় ধাপের আবদেনের আগে বিবেচনা করতে হবে সে কত নম্বর পয়েছে। না হয় আবারও ফল বিপর্যয় ঘটতে পারে।

তিনি আরও বলেন, সরকারি কলেজে পড়ার সুযোগ না পেলেও উন্নততর শিক্ষাপরিবেশ, নিয়মিত ক্লাস গ্রহণ, মাল্টিমিডিয়া প্রযুক্তির মাধ্যমে ক্লাসনির্ভর পাঠদান, মেধাবী শিক্ষকগণের তৈরি হ্যান্ডনোট, ছাত্রছাত্রীদের নিবিড় পরিচর্যা, দ্রুত সিলেবাস সমাপন ইত্যাদি ব্যতিক্রমী পাঠপদ্ধতি সম্পন্ন প্রাইভেট কলেজ চট্টগ্রামে রয়েছে। তাই মেধাতালিকায় আসা কলেজ যাদের পছন্দ হয়নি তারা এতে নিশ্চয়ন করেনি।
তিনি আরও বলেন, আগামী ১২ থেকে ১৪ সেপ্টেম্বর ২য় আবেদন করার সময় পছন্দক্রমে যে কলেজের নাম প্রথমদিকে রাখবে, সে কলেজেই শিক্ষার্থী ভর্তি হতে পারবে। এক্ষেত্রে চট্টগ্রামের সচেতন অভিভাবকমহলের আস্থা অর্জনকারী চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ড ও শিক্ষামন্ত্রণালয় অনুমোদিত চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজ (EIIN-১৩৪৭৮০) হতে পারে অন্যতম পছন্দ।

চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজে এসএসসি-তে জিপিএ ৪.৫ পাওয়া শিক্ষার্থী ভর্তি হয়ে এইচএসসি-তে জিপিএ-৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হচ্ছে! বিগত বছরে ৩৯ জন এ+সহ পর্যন্ত মোট ১৫০০ জন এই কলেজ থেকে এ+/এ অর্জন করেছে।
কারণ অত্র কলেজে কোন শিক্ষা্র্থীকে বাহিরে প্রাইভেট পড়তে হয়না! আমরা নিজস্ব ক্রিয়েটিভ সিস্টেমের হ্যান্ডনোটের সাহয্যে এবং অতিরিক্ত ক্লাসের মাধ্যমে জিপিএ বৃদ্ধির জন্য সর্বাত্মক প্রচেষ্টা করে থাকি। এখান থেকে পাশ করে মেধাবী ছাত্রছাত্রীরা মেডিকেল, ইঞ্জিনিয়ারিং ও বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার গৌরব অর্জন করছে প্রতিবছর। অতএব সরকারি বেসরকারি মুখ্য বিষয় নয় নিয়মিত ক্লাস করলে এবং মনেযোগী হলে প্রাইভেট কলেজ থেকেও ভালো ফলাফল করা সম্ভব।

এসএসসিতে ১১০০ নম্বর প্রাপ্তদের জন্য বিনামূল্যে শিক্ষা প্রদানের ঘোষণা করেছে এই কলেজ। আর্থিক অবস্থা বিবেচনায় ১০-৫০% পর্যন্ত স্কলারশীপ দেয়া হয়। ১০০ জনকে বিনা/হাফ বেতনে পড়ানো হয়। কলেজে গঠন করা হয়েছে বিশেষ পরামর্শ সেল (ফোন : ০১৯৭৭-২৯১৮৮৮)।

অভিভাবক এস. এম. শওকত বলেন, প্রাইভেট কলেজগুলো শিক্ষা্র্থীদের প্রতি অধিক যত্নশীল। এক্ষেত্রে ডিজিটাল ক্লাসের সুযোগ রয়েছে এমন কলেজকে প্রধান্য দেয়া উচিত, যাতে শিক্ষার্থীর কাছে পাঠ সহজবোধ্য হয়। এছাড়াও সৃজনশীলতা ও খেলাধূলার চর্চা হয় এমন ক্যাম্পাসই ছাত্রছাত্রীদের পছন্দ।

অনেক শিক্ষার্থী অতি আত্মবিশ্বাসের জোরে মাত্র কয়েকটি বা ৫টি কলেজ পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করে। কিন্তু দেখা গেল, তার প্রাপ্ত নম্বরে ওই ৫টি কলেজের কোনটিতেই সে ভর্তির সুযোগ পেল না। এছাড়া পছন্দক্রমে আর কলেজ না থাকায় পরবর্তী তালিকাতেও তার আসার সুযোগ থাকে না। এতে করে জিপিএ-৫ পেয়েও কিছু শিক্ষার্থীর ভর্তি নিয়ে অনিশ্চয়তা তৈরি হয়। তবে সুযোগ থাকায় সর্বোচ্চ দশটি কলেজ পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করলে ভর্তি ঘিরে এ ধরনের অনিশ্চয়তা কমে যায়। তাই ২য় আবেদনেও সর্বোচ্চ দশটি কলেজে পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করার জোরালো পরামর্শ দিয়েছেন চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের কলেজ পরিদর্শক প্রফেসর জাহেদুল হক।

 

 

পূর্বকোণ/এসি

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট