চট্টগ্রাম শনিবার, ১৫ জুন, ২০২৪

ইউপিডিএফ কর্মীকে গুলি করে হত্যা, মা হাসপাতালে

নাজিরহাট সংবাদদাতা

২ জুন, ২০২৪ | ১১:০৩ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি উপজেলার কাঞ্চননগর ইউনিয়নে রিদাসি মার্মা (২৮) নামে ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্টের (ইউপিডিএফ) এক সদস্যকে তার দলের কর্মীরা গুলি করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

 

শনিবার (১ জুন) রাতে উপজেলার কাঞ্চননগর ইউনিয়নের ছাইল্লাচ্ছর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় নিহত রিদাসির মা সন্ত্রাসীদের ছোড়া গুলিতে আহত হন।

 

নিহত রিদাসি মার্মা ওই এলাকার নেদাক্কা মার্মার ছেলে। তিনি ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের কর্মী ছিলেন বলে জানা গেছে। এ ঘটনার জন্য প্রতিপক্ষ ইউপিডিএফ সংস্কারপন্থীদের দায়ী করছে সংগঠনটি।

 

খাগড়াছড়ির মানিকছড়ি এবং চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইউপিডিএফ কর্মী নিহতের ঘটনা নিশ্চিত করেছেন।

 

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শনিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে কাঞ্চননগর ইউনিয়নের ছাইল্লাচ্ছরে রিদাসি মার্মা নামে এক ইউপিডিএফ কর্মীকে গুলি করে হত্যা করে ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক ইউনিটের সমন্বয়ক রবিন চাকমার নেতৃত্বাধীন একটি সশস্ত্র দল। এ সময় নিহত রিদাসি মার্মার মা গুরুতর আহত হন।

 

মানিকছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইকবাল উদ্দিন বলেন, ঘটনাস্থল চট্টগ্রামের ফটিকছড়িতে। সংশ্লিষ্ট থানা এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেবে।

 

তিনি জানান, গুলিবিদ্ধ নারীকে মানিকছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হয়েছিল। পরবর্তীতে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ফটিকছড়ি থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মুহাম্মদ সেলিম জানান, মানিকছড়ি এবং ফটিকছড়ির সীমানায় ঘটনাটি ঘটেছে। মুখোশধারী সন্ত্রাসীরা মানিকছড়ি সীমানা থেকে গুলি করে ফটিকছড়ি সীমান্তে থাকা রিদাসি মার্মাকে তার ঘরের সামনে হত্যা করে। এ ঘটনায় তার মা গুলিবিদ্ধ হয়। তিনি চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

 

এদিকে ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের খাগড়াছড়ি জেলার সংগঠক অংগ্য মারমা এ হত্যাকাণ্ডের জন্য ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক গণতান্ত্রিক ইউনিটেকে দায়ী করেছেন।

 

 

পূর্বকোণ/মুন্না/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট