চট্টগ্রাম সোমবার, ২০ মে, ২০২৪

সর্বশেষ:

হাসপাতালে চিকিৎসককে মারধর: পটিয়ায় একজন গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৭ এপ্রিল, ২০২৪ | ৩:৪৮ অপরাহ্ণ

পটিয়ায় মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তিকে সেবা দিতে দেরি হওয়ায় বেসরকারি হাসপাতালে দায়িত্বরত এক চিকিৎসককে মারধর করা হয়েছে। এই ঘটনায় করা মামলায় রফিক হাসান (৪৬) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

 

মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল) রাত ১১টায় পটিয়া পৌরসদর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

 

এর আগে বুধবার (১০ এপ্রিল) রাত সাড়ে ১১টায় পটিয়া পৌরসভার বেসরকারি পটিয়া জেনারেল হাসপাতালে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তিকে সেবা দিতে দেরি হওয়ার অভিযোগে জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক রক্তিম দাশের ওপর এ হামলার ঘটনা ঘটে। এতে ওই চিকিৎসক আহত হন।

 

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার (১২ এপ্রিল) রাতে পটিয়া জেনারেল হাসপাতালের নির্বাহী পরিচালক এস এইচ খাদেমী প্রকাশ বাহাদুর বাদি হয়ে পটিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলায় মোহাম্মদ মুকুল, মোহাম্মদ টিপু ও পটিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সৈয়দসহ অজ্ঞাতনামা ১০/১২ জনকে আসামি করা হয়েছে।

 

মামলার অভিযোগে বলা হয়- বুধবার রাত পৌনে ১১ টায় পৌরসভা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল্লাহ পলাশ (৪২) নামে একব্যক্তিকে আহত অবস্থায় পটিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়। এ সময় জরুরি বিভাগের দায়িত্বরত ডা. রক্তিম দাশ আহত ব্যক্তিকে প্রাথমিক চিকিৎসার পর তাকে পরবর্তী চিকিৎসার জন্য অপারেশন রুমে নেওয়া হয়। অপারেশন রুমে ডাক্তার যেতে দেরি হওয়ায় ডা. রক্তিম দাশকে হাসপাতালেই মারধর করা হয় এবং বিভিন্ন সরঞ্জাম ভাঙচুর করা হয়। পরে ডাক্তরকে মারধরের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে।

 

পটিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জসীম উদ্দিন জানান, মঙ্গলবার রাতে পটিয়া জেনারেল হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসকের ওপর হামলার ঘটনাটি সিসিটিভি ফুটেজে শনাক্ত করে রফিক হাসান নামের একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আজ তাকে আদালতে পাঠানো হবে। মামলার অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশ কাজ করছে।

পূর্বকোণ/পিআর/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট