চট্টগ্রাম শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪

সর্বশেষ:

ছেলের দেওয়া আগুনে পুড়ল বাবার ঘর!

ঈদগাঁও সংবাদদাতা

২১ মার্চ, ২০২৪ | ৮:৫১ অপরাহ্ণ

কক্সবাজারের ঈদগাঁও উপজেলায় ছেলের দেওয়া আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে বাবার ঘর। নিজেদের ঘরে আগুন লাগিয়ে দেওয়ার পর ছেলে লাঠি হাতে নিয়ে পাহারা দিয়েছে, যাতে পাড়া-প্রতিবেশীরা আগুন নেভাতে না আসে।

 

বৃহস্পতিবার (২১ মার্চ) বিকাল ৪টায় এমনই ঘটেছে উপজেলার পোকখালী ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের নাইক্ষ্যংদিয়া গ্রামে। আর এতে পুড়ে ভস্মীভূত হয়ে গেছে পিতা জামাল উদ্দীনের বসতঘর। অবশ্য শেষ মূহূর্তে পাড়া-প্রতিবেশীদের ধাওয়া খেয়ে পালিয়েছে ওসমান। কিন্তু ততক্ষণে সব পুড়ে ছাই।

 

স্থানীয় ইউপি সদস্য হেলাল উদ্দিন জানান, গৃহকর্তার বড় ছেলে ওসমান গণি একটি অটোরিকশার গ্যারেজে চাকরির সুবাদে কক্সবাজার শহরে থাকে। তার স্ত্রীর সাথে পিতা-মাতার মনোমালিন্য হওয়ায় স্ত্রী কিছুদিন বাপের বাড়িতে ছিল। আজ দুপুরের পরে ওসমানের স্ত্রী বাপের বাড়ি থেকে শশুরবাড়িতে এলে শশুর তাকে বাড়িতে ঢুকতে দেয়নি। তখন স্ত্রী ওসমানকে ফোন করলে সে বাড়িতে এসে পিতার সাথে তর্কাতর্কিতে লিপ্ত হয় ও একপর্যায়ে বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয়।

 

তিনি আরও বলেন, ওসমান বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয়ার পর লাঠি হাতে নিয়ে পাহারা দেয়, যাতে আগুন নিভাতে কেউ এগিয়ে আসতে না পারে। এতে কাঠ ও টিন নির্মিত বাড়িটি অল্পসময়ের মধ্যেই পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পরে পাড়া-প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে ওসমান পালিয়ে যায়। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারটি এখন খোলা আকাশের নীচে অবস্থান করছে। এ অগ্নিকাণ্ডে আনুমানিক ৭ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে।

 

পূর্বকোণ/তারেক/জেইউ/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট