চট্টগ্রাম সোমবার, ২৪ জুন, ২০২৪

সর্বশেষ:

হাটহাজারীর সাব-রেজিস্ট্রার পারভিন কারাগারে

হাটহাজারী সংবাদদাতা

১৯ অক্টোবর, ২০২৩ | ১:২৭ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলার সাব-রেজিস্ট্রার পারভিন আক্তারকে দুদকের একটি মামলায় কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

 

সোমবার (১৬ অক্টোবর) সিলেট মহানগর দায়রা জজ আদালতে তিনি আত্মসমর্পণ করলে বিচারক এ কিউ এম নাসির উদ্দিন তাকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। তার বিরুদ্ধে সিলেটে সাব-রেজিস্ট্রার থাকাকালীন ১ কোটি ২৬ লাখ টাকা রাজস্ব ফাঁকি দেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

 

চট্টগ্রাম জেলা রেজিষ্ট্রার মিশন চাকমা বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

 

সুত্রে জানা যায়, ২০২০ সালে সিলেট সদর সাব-রেজিস্ট্রার এলাকাধীন একটি কোম্পানির নামে থাকা ১৫ একর জমির শ্রেণি পরিবর্তন করেন পারভিন আক্তার। একইসঙ্গে ব্যক্তি মালিকানা ও টিলা শ্রেণি দেখিয়ে ভুয়া কাগজপত্রের মাধ্যমে ১২টি দলিল রেজিস্ট্রেশনও করে দেন তিনি। এ ঘটনায় সরকার ১ কোটি ২৬ লাখ ৩৯ হাজার ২২৯ টাকা রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হয়।

ঘটনার পর ওই কোম্পানির উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মনজারুল আলম চৌধুরী ২০২০ সালের ২৯ জানুয়ারি ২২ জনকে আসামি করে সিলেট মহানগর বিশেষ জজ আদালতে একটি মামলা করেন। মামলায় দলিলদাতাকে প্রধান ও সাব-রেজিস্ট্রার পারভিন আক্তারকে ২ নম্বর আসামি করে ২২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন। অভিযোগের পর আদালত মামলাটি দুর্নীতি দমন কমিশনকে তদন্তের দায়িত্ব দেন। ২০২১ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন দুদকের সহকারী পরিচালক ইসমাইল হোসেন। এরপর আদালত অভিযোগপত্র যাচাই-বাছাই করে মামলটি আমলে নিয়ে আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন। মামলায় তিনজন আসামি আদালত থেকে জামিন নিলেও হাটহাজারী সাব-রেজিস্ট্রার পারভিনসহ বাকি ১৮ জন আসামি পলাতক ছিলেন।

 

সোমবার (১৬ অক্টোবর) সিলেট মহানগর দায়রা জজ আদালতে সাব-রেজিস্ট্রার পারভীন আক্তার আত্মসমর্পণ করেন। শুনানি শেষে আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

পূর্বকোণ/পিআর/এসি

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট