চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৩ জুন, ২০২৪

সর্বশেষ:

৬ ঘণ্টা পর কালুরঘাটে ফেরি পারাপার স্বাভাবিক

বোয়ালখালী সংবাদদাতা

১০ অক্টোবর, ২০২৩ | ৮:৫৬ অপরাহ্ণ

কালুরঘাটের পশ্চিম প্রান্তের ফেরিঘাটের বেইলি সেতুর এক পাশ দেবে যাওয়ায় ফেরি পারাপার বন্ধ ছিল প্রায় ৬ ঘণ্টা। এ সময় কালুরঘাটের কর্ণফুলী নদীর দুইপাড়ে শতশত যানবাহনের দীর্ঘ লাইন জমে যায়। নদী পারাপারে ভোগান্তিতে পড়েন মানুষজন।

 

মঙ্গলবার (১০ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১১টার দিকে ফেরিঘাটের বেইলি সেতুর একপাশ দেবে যাওয়ায় ফেরিতে যানবাহন ওঠা-নামা করতে পারছিল না। ফলে বন্ধ থাকে ফেরি চলাচল। এতে দুইপাড়ে দীর্ঘ লাইন পড়ে যায় যানবাহনের। অনেক যানবাহন শাহ আমানত সেতু হয়ে বোয়ালখালী আসা যাওয়া করে। এ সময় যাত্রীদের ঝুঁকি নিয়ে নৌকায় নদী পারাপার হতে দেখা গেছে। দীর্ঘক্ষণ চেষ্টা চালিয়ে বেইলি সেতুটি মেরামত করার পর বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে শুরু হয় ফেরি চলাচল।

 

বিষয়টি নিশ্চিত করে ফেরির টোল আদায়কারী মো. আজিজ বলেন, কালুরঘাটের পশ্চিম প্রান্তের ফেরিঘাটের টানা সেতুটির একাংশ দেবে যাওয়ায় এই বিপত্তি দেখা দেয়। পরে তা মেরামত করা হলে আবারও ফেরি চলাচল শুরু হয়।

 

বোয়ালখালী উপজেলার বাসিন্দা মো. আরাফাত হোসেন বলেন, দুপুর ১২টার দিকে নদী পার হতে গিয়ে জানতে পারি ফেরি চলাচল বন্ধ। আধ ঘণ্টা অপেক্ষা করার পর ঝুঁকি নিয়ে নৌকা করে নদী পার হয়েছি। অনেকে মোটর সাইকেল নিয়ে এসে বিপাকে পড়েছেন।

 

সাংবাদিক বাবর মুনাফ জানান, বিকেল ৩টার দিকে নগরে কর্মস্থলে যাওয়ার সময়ও ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। নৌকায় পার হয়েছি। এসময় শতশত যানবাহনের দীর্ঘ লাইন ছিলো নদীর দুইপাড়ে।

 

গত ১ আগস্ট থেকে সংস্কার কাজের জন্য কালুরঘাট সেতু বন্ধ ঘোষণা করে রেলওয়ে। এর বিকল্প হিসেবে কর্ণফুলী নদীতে চালু করা হয় ফেরি সার্ভিস। ফেরি চালুর প্রথম দিন থেকেই পারাপারে চরম ভোগান্তি পোহাচ্ছেন সাধারণ মানুষ।

 

পূর্বকোণ/পূজন/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট