চট্টগ্রাম সোমবার, ২০ মে, ২০২৪

সর্বশেষ:

সেন্টমার্টিনে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে বিজিবি মহাপরিচালক

টেকনাফ সংবাদদাতা

১৬ মে, ২০২৩ | ৮:৪৮ অপরাহ্ণ

সেন্টমার্টিনে ঘূর্ণিঝড় মোখায় ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) এর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল একেএম নাজমুল হাসান। দ্বীপ পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন তিনি।

 

আজ মঙ্গলবার (১৬ মে) সকালে সেন্টমার্টিন বিওপি পরিদর্শন করেন এবং সেখানে ক্ষতিগ্রস্ত ৮০০ জন অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন।

 

তথ্য নিশ্চিত করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) এর সদর দপ্তরের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরীফুল ইসলাম গণমাধ্যমকে জানান, বিজিবি মহাপরিচালক মেজর জেনারেল একেএম নাজমুল হাসান টেকনাফ-২ বিজিবি ব্যাটালিয়ন এর অধীনস্থ সেন্ট মার্টিন বিওপি পরিদর্শন করেন এবং সেখানে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত ৮০০ জন অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন। পরে বিজিবি মহাপরিচালক বিওপিতে দায়িত্বরত বিজিবি সদস্যদের সাথে মতবিনিময় করেন এবং দুর্যোগ মোকাবিলায় সঠিকভাবে দায়িত্ব পালনের জন্য সকলস্তরের সদস্যদেরকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

 

এ সময় বিজিবি সদর দপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, কক্সবাজার রিজিয়নের রিজিয়ন কমান্ডার, টেকনাফ-২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্ণেল মো. মহিউদ্দীন আহমেদসহ বিজিবি’র অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ এবং মিডিয়া কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। ঘূর্ণিঝড় মোখা মোকাবিলায় কক্সবাজার জেলা ও তৎসংলগ্ন উপকূলীয় এলাকায় ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত ঘোষণার পর থেকেই বিজিবি সদস্যগণ উপকূলীয় অঞ্চলে মাইকিং করে এবং বাড়ি বাড়ি গিয়ে দুর্যোগের আগাম বার্তা পৌঁছে দিয়েছে। এছাড়াও ঘূর্ণিঝড় কবলিত এলাকার জনসাধারণকে সাইক্লোন শেল্টার বা নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নিতে বিজিবি প্রত্যক্ষ ভূমিকা পালন করেছে।

 

এদিকে রাত ৮টায় সেন্টমার্টিন দ্বীপ ইউপি চেয়ারম্যান মুজিবিুর রহমান বলেন, ১৬ মে একদিনে বাংলাদেশ নৌবাহিনী ৫০০ পরিবারকে, বিজিবি ৩০০ পরিবারকে ও এনজিও সংস্থা সুশীলণ ৫০০ পরিবারকে ত্রাণ সামগ্রী দিয়েছে। গৃহ নির্মাণ সামগ্রী এখনও দ্বীপে পৌঁছেনি।

 

 

পূর্বকোণ/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট