চট্টগ্রাম সোমবার, ২৪ জুন, ২০২৪

জম্মু-কাশ্মীরে বাসে হামলার দায় নিলো লস্কর

অনলাইন ডেস্ক

১০ জুন, ২০২৪ | ১০:০৮ অপরাহ্ণ

জম্মু ও কাশ্মীরে তীর্থযাত্রীদের বাসে জঙ্গি হামলার দায় স্বীকার করেছে পাকিস্তান মদদপুষ্ট জঙ্গি সংগঠন লস্কর-ই-তৈয়বার শাখা সংগঠন দ্য রেজিস্ট্যান্স ফ্রন্ট (টিআরএফ)। রবিবার (৯ জুন) জম্মু ও কাশ্মীরের রিয়াসি জেলায় তীর্থযাত্রীদের বহনকারী ওই বাসে জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটে। এতে বাস চালকসহ নয়জন নিহত হন। আহত হয়েছে কমপক্ষে ৩৩ জন। ভারতের সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে এ খবর জানিয়েছে।

 

রবিবার সন্ধ্যায় এক বিবৃতিতে জঙ্গি সংগঠনটি ভবিষ্যতে এমন হামলার ঘটনা আরও ঘটিয়ে যাবে বলে হুমকি দিয়েছে। বলেছে, জম্মু-কাশ্মীরে পর্যটকদের ওপর এমন হামলা চলতেই থাকবে। রিয়াসি হামলা দিয়ে তা শুরু হলো। জম্মুর শিবখড়ি মন্দির থেকে কাটরায় বৈষ্ণো দেবীর মন্দিরের উদ্দেশে যাচ্ছিল বাসটি। সেই সময়ে পাশের জঙ্গলে লুকিয়ে থাকা জঙ্গিরা হঠাৎ বাসটিতে হামলা চালায়। বাসের চালক গুলিবিদ্ধ হয়ে ভারসাম্য হারান। ফলে বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে যায়।

 

ঘটনার পর ওই এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। জঙ্গিদের ধরতে ব্যাপক তল্লাসি অভিযান শুরু হয়েছে। জাতীয় তদন্ত সংস্থা (এনআইএ) কে হামলার তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

 

জানা গেছে, রিয়াসি বাস হামলায় দুই/তিনজন জঙ্গি জড়িত। গত মাসে এই জঙ্গি দলটিই রাজৌরি এবং পুঞ্চে হামলা চালিয়েছিল এবং জঙ্গলে এখনও তারা লুকিয়ে আছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ২০১৯ সালে জম্মু ও কাশ্মীরকে বিশেষ মর্যাদা প্রদানকারী ৩৭০ ধারা বাতিল করার পর, জঙ্গি সংগঠনটি মাথা চাড়া দিয়ে ওঠে। ২০২৩ সালে টিআরএফকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে নিষিদ্ধ ঘোষণা করে ভারত সরকার।

 

প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদির শপথের দিনই এ ধরনের হামলার ঘটনা ভারতকে উদ্বেগে ফেলেছে। প্রধানমন্ত্রী পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যালোচনা করছেন বলে জানিয়েছেন জম্মু ও কাশ্মীরের লেফটেন্যান্ট গভর্নর মনোজ সিনহা।

 

 

পূর্বকোণ/আরআর/পারভেজ

শেয়ার করুন