চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৩ জুন, ২০২৪

অনশনে কারাগারে বন্দী শান্তিতে নোবেল বিজয়ী নার্গিস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

৭ নভেম্বর, ২০২৩ | ২:০২ অপরাহ্ণ

চলতি বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কারজয়ী ইরানি মানবাধিকারকর্মী নার্গিস মোহাম্মদি কারাগারে অনশন শুরু করেছেন। তার এবং অন্যান্য বন্দীদের সঠিকভাবে চিকিৎসাসেবা চিকিৎসাসেবা না দেওয়ার সরকারি সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে অনশন করছেন তিনি।

সোমবার থেকে কারাগারেই অনশন শুরু করেন ইরানি এই মানবাধিকারকর্মী। খবর আল জাজিরা ও বিবিসি।

৫১ বছর বয়সী মানবাধিকার কর্মী নার্গিস বর্তমানে ইরানের রাজধানী তেহরানের এভিন কারাগারে বন্দী রয়েছেন। ইরানে নারী নিপীড়নের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য চলতি বছরের অক্টোবরে নোবেল পুরস্কারে ভূষিত হন তিনি।

হিউম্যান রাইটস অ্যাক্টিভিস্ট নিউজ এজেন্সি জানায়, হৃদরোগ ও ফুসফুসের সমস্যায় ভুগছেন ৫১ বছর বয়সী নার্গিস মোহাম্মদি। কিন্তু গত সপ্তাহে মাথায় স্কার্ফ পরতে অস্বীকার করায় তাঁকে হাসপাতালে যেতে দেয়নি কারা কর্তৃপক্ষ।

সোমবার এক বিবৃতিতে তার পরিবার জানায়, নার্গিস আজ (সোমবার) এভিন কারাগার থেকে একটি বার্তার মাধ্যমে আমাদের জানিয়েছেন যে তিনি কয়েক ঘন্টা আগে অনশন শুরু করেছেন। সে শুধুমাত্র পানি, চিনি এবং লবণ খাচ্ছিল এবং তার ওষুধ খাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ‘আমরা নার্গিস মোহাম্মদীর শারীরিক অবস্থা এবং স্বাস্থ্য নিয়ে উদ্বিগ্ন।’

তার পরিবার বলছে যে, ‘কারাগারের বাইরে তার “জরুরি” চিকিৎসার প্রয়োজন ছিল। কিন্তু নার্গিস কোনো অবস্থাতেই হিজাব পরিধান করতে অস্বীকার করছেন আর কর্তৃপক্ষ তাকে চিকিৎসার জন্য এভিনের বাইরের একটি হাসপাতালে স্থানান্তর করতে অস্বীকার করেছে।‘

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “দুটি বিষয়ের প্রতিবাদে নার্গিস অনশন করেছেন। একটি হল অসুস্থ বন্দীদের চিকিৎসাসেবা বিলম্বিত ও অবহেলা করার ইসলামী প্রজাতন্ত্রের নীতি এবং ইরানি মহিলাদের জন্য ‘বাধ্যতামূলক হিজাব’ নীতি।‘

নার্গিসের সাথে কোন কিছু ঘটলে তার জন্য ইরানের সরকার দায়ী থাকবে বলে জানায় তার পরিবার।

 

 

পূর্বকোণ/এসি

শেয়ার করুন