চট্টগ্রাম সোমবার, ২৪ জুন, ২০২৪

‘সম্পর্ক নতুন উচ্চতায় নিয়ে যাওয়ার জন্য কাজ করছি’

ইউএই প্রতিনিধি

২২ মে, ২০২৪ | ৬:২১ অপরাহ্ণ

বন্ধুপ্রতিম দুই দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাংলাদেশের কূটনৈতিক সম্পর্ককে নতুন উচ্চতায় নিয়ে যাওয়ার জন্য কাজ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন আমিরাতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর।

 

মঙ্গলবার (২১ মে) দুই দেশের কূটনৈতিক সম্পর্কের ৫০তম বর্ষপূর্তি উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি একথা জানান।

 

আবুধাবির ইন্টারকন্টিনেন্টাল হোটেলের দার আল ইশতিকবাল হলে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে ইউএইতে কর্মরত বিভিন্ন দেশের কূটনীতিক ও অভ্যাগত অতিথিরা অংশগ্রহণ করেন।

 

ইউএইতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর, রাষ্ট্রদূত পত্নী সালমা জাফর, মিশন উপপ্রধান মিজানুর রহমান অনুষ্ঠানে অভ্যাগতদের স্বাগত জানান। এরপর কেক কেটে, আমিরাতের সাংস্কৃতিক মন্ত্রণালয় ও প্রবাসী বাংলাদেশি শিল্পীদের অংশগ্রহণে দু’দেশের জাতীয় সংগীত পরিবেশনার মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। এ সময় ১৯৭৪ সালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক আমিরাত সফরের প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শিত হয়।

 

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন ইউএই পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এসিস্টেন্ট মিনিস্টার সুলতান আল শামসি। এছাড়া আমিরাতে কর্মরত ৭০টি দেশের রাষ্ট্রদূত, মিশন প্রতিনিধি ও তাদের পত্নীগণ, দুবাইয়ে নিযুক্ত বাংলাদেশের কন্সাল জেনারেল বি এম জামাল হোসেন, দূতাবাসের মিশন উপপ্রধান মিযানুর রহমান, মিনিস্টার (শ্রম) আবদুল আওয়াল, দুবাই বিজনেস কাউন্সিলের সভাপতি মাহতাবুর রহমান নাসের, বঙ্গবন্ধু পরিষদ আবুধাবির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইমরাদ হোসেন, বাংলাদেশ সমিতি ইউএই’র সভাপতি প্রকৌশলী মোয়াজ্জেম হোসেন, জনতা ব্যাংক, বিমানসহ বিভিন্ন পেশাজীবী, সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, আমিরাত সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ এবং দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

 

অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর বলেন, ৫০ বছরে বাংলাদেশ ও ইউএই তাদের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আজকের পর্যায়ে এগিয়ে নিয়ে গেছেন। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমিরাতে তার ঐতিহাসিক সফরের মধ্য দিয়ে এই সম্পর্কের ভিত্তি রচনা করেছিলেন। ১৯৭৬ সালে জনতা ব্যাংকের আমিরাতে অপারেশন চালু করা হয়। বাংলাদেশের বিল্ডার্সরা এ দেশের নির্মাণ সেক্টরে কাজ করেন যার মাধ্যমে ব্যাপক হারে বাংলাদেশি কর্মী এদেশে আসতে শুরু করেন। আজ বাংলাদেশ ও ইউএই’র কূটনৈতিক সম্পর্কের অন্যতম ভিত্তি হচ্ছে ১০ লাখেরও বেশি প্রবাসী বাংলাদেশি কর্মীরা। তারা দুই দেশের কূটনৈতিক সম্পর্কের বুনিয়াদকে প্রতিদিনই মজবুত করছেন। আগামী দিনগুলোতে আমাদের সম্পর্ক আরও বিকশিত হবে।

 

 

পূর্বকোণ/বাপ্পি/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট