চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৩ মে, ২০২৪

চট্টগ্রামে চিকিৎসাসেবা বন্ধ, রোগীদের দুর্ভোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৩ এপ্রিল, ২০২৪ | ১২:০০ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রামে দুই চিকিৎসকের ওপর হামলার প্রতিবাদে মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) সকাল ৬টা থেকে চিকিৎসাসেবা বন্ধ রেখেছেন চিকিৎসকরা। সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালগুলোতে করানো হচ্ছে না রোগী ভর্তি। পাশাপাশি ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলোতে করানো হচ্ছে না পরীক্ষা-নিরীক্ষা। এতে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে রোগীদের।

 

নগরীর বিভিন্ন হাসপাতাল ও ল্যাবের সামনে ঝুলছে ব্যানার। আর তাতে লেখা আছে- সকল প্রকার সেবা থেকে বিরত থাকবেন তারা।

 

ফটিকছড়ি থেকে চিকিৎসা নিতে আসা এক রোগী বলেন, অনেক দূর থেকে ডাক্তারের কাছে এসেছি। হাসপাতালে ডাক্তার নেই জানাল। আবার ফিরে যেতে হবে। এই গরমে এত দূর থেকে আসা যাওয়া অনেক কষ্টের। তার উপর চিকিৎসাসেবা বন্ধ।

 

এপিক, হাসাপাতাল থেকে জানানো হয়, নতুন করে কোন পরীক্ষা বা রোগী ভর্তি নেওয়া হচ্ছেনা। আজ ডাক্তাররা কোন রোগীও দেখছেন না। তবে আগে ভর্তি হওয়া রোগীদের দেখছেন ডাক্তাররা।

 

এদিকে, কর্মসূচি সংক্রান্ত বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ) চট্টগ্রাম শাখার সাধারণ সম্পাদক ডা. মোহাম্মদ ফয়সল ইকবাল চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে সোমবার রাতে বলা হয়, পটিয়া জেনারেল হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. রক্তিম দাশের ওপর হামলাকারী ছৈয়দ চেয়ারম্যানসহ অন্য আসামিদের গ্রেপ্তার ও চট্টগ্রাম মেডিকেল সেন্টারে এনআইসিইউতে কর্তব্যরত শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. রিয়াজ উদ্দিন শিবলুর ওপর হামলার মূল আসামিসহ জামিনপ্রাপ্তদের জামিন বাতিলের দাবি ও অন্য আসামিদের গ্রেফতারের দাবিতে গত ১৭ এপ্রিল বিএমএ চট্টগ্রাম শাখা, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ চট্টগ্রাম শাখা, বেসরকারি চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান সমিতি, বাংলাদেশ শিশু চিকিৎসক সমিতি ও অন্যান্য চিকিৎসক সংগঠনের যৌথসভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বিভিন্ন কর্মসূচি দেয়।

 

কর্মসূচির মধ্যে আছে- মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে বুধবার সকাল ৬টা পর্যন্ত সব প্রকার প্রাইভেট প্র্যাকটিস (ব্যক্তিগত চেম্বার, হাসপাতালে নতুন রোগী ভর্তি, ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নতুন রোগীর সেবা) বন্ধ থাকবে। বেসরকারি হাসপাতাল ক্লিনিকে আগের ভর্তি রোগীর চিকিৎসা সেবা চলবে। ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পূর্বের রোগীর রিপোর্ট ডেলিভারি দেওয়া যাবে, কোনও নতুন রোগী এন্ট্রি বা সেবা দেওয়া যাবে না।

পূর্বকোণ/পিআর/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট