চট্টগ্রাম সোমবার, ২৭ মে, ২০২৪

‘শুধু কিশোর গ্যাং নয়, গড ফাদারদেরও আইনের আওতায় আনা হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৬ এপ্রিল, ২০২৪ | ১০:৩১ অপরাহ্ণ

শুধু কিশোর গ্যাং নয়, তাদের গড ফাদারদেরও আইনের আওতায় আনা হবে হবে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আবুল বাসার মোহাম্মদ ফখরুজ্জামান।

 

আজ মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল) সকালে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

 

আবুল বাসার মোহাম্মদ ফখরুজ্জামান বলেছেন, আমরা কিশোর গ্যাং দেখতে চাই না। কিশোর গ্যাংয়ের অপতৎপরতা যেভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে তা অত্যন্ত উদ্বেগজনক। তাদের হাত থেকে নিরীহ মানুষ, চিকিৎসক, ব্যবসায়ী, শিক্ষক থেকে শুরু করে কেউ রক্ষা পাচ্ছে না। শুধু কিশোর গ্যাং নয়, তাদের গড ফাদারদেরও আইনের আওতায় আনা হবে। আগামী ৮ মে প্রথম ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে এখানকার সীতাকুণ্ড, মিরসরাই ও সন্ধীপ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে কোন ধরনের প্রভার বিস্তার করতে দেয়া হবে না। দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন যেভাবে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছিল, ঠিক উপজেলা পরিষদ নির্বাচন একইভাবে অনুষ্ঠিত হবে।

 

মাল্টিমিডিয়ার মাধ্যমে গত মাসের খাতওয়ারী অপরাধ চিত্র তুলে ধরেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) একেএম গোলাম মোর্শেদ খান।

 

সভায় জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) এস.এম শফিউল্লাহ বলেন, আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণ ও অস্ত্র উদ্ধারে মাদক রোধে পুলিশ কাজ করছে। যদি কোন গোষ্ঠী বা দল অনুষ্ঠিতব্য উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বানচালের চেষ্টা করে তাদের ছাড় নেই।

 

চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আবুল বাসার মোহাম্মদ ফখরুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন এনএসআই’র যুগ্ম পরিচালক মো. মাজাহারুল ইসলাম, ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. ওয়াজেদ চৌধুরী অভি, মহানগর মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোজাফফর আহমদ, জেলার ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা একেএম সরওয়ার কামাল দুলু, চেম্বার পরিচালক অহিদ সিরাজ চৌধুরী স্বপন, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুল মান্নান, জেলা আনসার কমান্ড্যান্ট এএইচএম সাইফুল্লাহ হাবিব, কর্ণফুলী উপজেলা চেয়ারম্যান ফারুক চৌধুরী, চট্টগ্রামের সকল উপজেলার ইউএনও, সিএমপি’র এসি (ক্রাইম) নুরে আল মাহমুদ, জেলা পাবলিক প্রসিকিউটর এডভোকেট মোহাম্মদ মহসীন, অপরাধ ট্রাইব্যুনালের স্পেশাল পিপি এডভোকেট হরিপদ চক্রবর্তী, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক হুমায়ুন কবির খন্দকার, সিনিয়র জেল সুপার মুহাম্মদ মঞ্জুর হোসেন, র‌্যাবের এএসপি মো. নাফি উদ্দিন, বিভিন্ন উপজেলার পৌর মেয়রবৃন্দ, হাটহাজারী পৌর প্রশাসক মঞ্জুরুল আলম চৌধুরী প্রমুখ। এছাড়াও সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা, প্রতিনিধি ও আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সদস্যরা সভায় উপস্থিত ছিলেন।

 

 

পূর্বকোণ/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট