চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৩ মে, ২০২৪

সর্বশেষ:

আসল পিবিআইয়ের হাতে ভুয়া ‘পিবিআই অফিসার’ গ্রেপ্তার চট্টগ্রামে

নিজস্ব প্রতিবেদক

৬ এপ্রিল, ২০২৪ | ৭:৪৯ অপরাহ্ণ

পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) ‘ওসি’ পরিচয়ে প্রবাসীর স্ত্রী থেকে দুই লাখ টাকা হাতিয়ে সংস্থাটির কাছেই গ্রেপ্তার হয়েছেন পংকজ নাথ (৩২) নামে এক যুবক।

 

পিবিআই জানিয়েছে, হোয়াটস অ্যাপে পুলিশের পোশাক পরা ছবি দিয়ে নিজেকে পিবিআইয়ের ‘ওসি নাজমুল’ পরিচয় দিয়ে ওই যুবক প্রতারণা করে আসছিলেন। এছাড়াও সে নিজেকে কখনও সিআইডি অফিসার, কখনও নৌবাহিনীর কমডোর পরিচয় দিয়েও অনেকের সঙ্গে প্রতারণা করেছেন।

 

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) নগরীর দক্ষিণ হালিশহর থেকে ওই যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পিবিআইয়ের চট্টগ্রাম জেলা ইউনিটের পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান।

 

গ্রেপ্তার পংকজ নাথ চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার কধুরখীল ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা পুলিন দেবনাথের ছেলে।

 

পিবিআই জানিয়েছে, পংকজের সঙ্গে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হাটহাজারী উপজেলার ফতেয়াবাদ এলাকার বাসিন্দা এক প্রবাসীর স্ত্রীর পরিচয় হয়। ওই নারী তার পরিচিত এক ব্যক্তির কাছে প্রায় দশ লাখ টাকা পান। পরিচয়ের সময় পংকজ নিজেকে পিবিআইয়ের ‘ওসি নাজমুল’ বলে পরিচয় দেয়। পাওনা টাকা উদ্ধারে ওই নারী তার সহযোগিতা চান। তখন পংকজ তাকে টাকা উদ্ধারের আশ্বাস দিয়ে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে ২ লাখ ১০ হাজার টাকা গ্রহণ করেন। এরপর আরও এক লাখ টাকা দাবি করলে তার সন্দেহ হয়।

 

পিবিআইয়ের জেলা এসপি নাজমুল হাসান বলেন, প্রবাসীর স্ত্রী আমাদের কাছে এসে ওসি নাজমুল নামে পিবিআইয়ে কেউ আছেন কি না এবং তার কাছে পাওনা টাকা উদ্ধারের কোনো অভিযোগ তদন্তাধীন আছে কি না জানতে চান। আমরা প্রতারণার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে পংকজকে ধরতে অভিযান শুরু করি। একপর্যায়ে তার অবস্থান শনাক্ত করে দক্ষিণ হালিশহর উচ্চ বিদ্যালয় এলাকা থেকে শুক্রবার রাতে আমরা তাকে গ্রেপ্তার করি।

 

পংকজকে একজন বহুমুখী ও পেশাদার প্রতারক উল্লেখ করে তিনি বলেন, হোয়াটস অ্যাপের প্রোফাইলে সে পুলিশের পোশাক পরা একটি ছবি ব্যবহার করেছে, যাতে লোকের বিশ্বাস জন্মে। ফেসবুকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র এবং পুলিশ ইন্সপেক্টর হিসেবে নিজের পরিচয় উল্লেখ করেছে। হোয়াটস অ্যাপে বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে মেসেজ আদান-প্রদান পর্যালোচনা করে দেখা যায়, সে ওসি-পিবিআই, সিআইডি অফিসার, নৌবাহিনীর কমডোর হিসেবেও বিভিন্নজনকে পরিচয় দিয়েছে। প্রবাসীর স্ত্রীর কাছ থেকে নেয়া টাকা থেকে ৫১ হাজার টাকায় সে একটি ফ্রিজ কিনেছে। আমরা সেটিও জব্দ করেছি।

 

সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান, ‘পিবিআই এসপি নাজমুল’ নামের পরিচিতিকে কাজে লাগিয়ে পেশাদার এ প্রতারক মানুষের কাছ থেকে টাকাপয়সা হাতিয়ে নেয়ার কৌশল নিয়েছিল। পিবিআইয়ের নাম ভাঙ্গিয়ে প্রতারণার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে হাটহাজারী থানায় মামলা দায়ের করেছেন সংস্থাটির এসআই শাহাদাত হোসেন।

 

 

পূর্বকোণ/জেইউ/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট