চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪

সর্বশেষ:

চট্টগ্রামের ১৬ আসনে জমজমাট নির্বাচনী প্রচারণা

১১টিতে দ্বিমুখী ও একটিতে ত্রিমুখী লড়াইয়ের আভাস

মোহাম্মদ আলী

১ জানুয়ারি, ২০২৪ | ২:৩০ অপরাহ্ণ

নির্বাচনের দিনক্ষণ অর্থাৎ ৭ জানুয়ারি যতই ঘনিয়ে আসছে, চট্টগ্রামের ১৬ আসনে ততই জমজমাট লড়াইয়ে আভাস পাওয়া যাচ্ছে। প্রার্থীদের দম ফেলার ফুরসত নেই। শেষ মুহূর্তে গণসংযোগ ও পথসভায় জমে উঠেছে ভোটের মাঠ। নির্বাচনকে ঘিরে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। কোন কোন প্রার্থী মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আসবেন এ নিয়ে চলছে ব্যাপক বিশ্লেষণ। এর মধ্যে ভোটারদের সাথে আলোচনায় উঠে এসেছে নানা তথ্য।

সর্বশেষ প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী চট্টগ্রামের ১৬টি আসনের মধ্যে ৪টিতে একেবারে সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থীরা। ১১টি আসনে দ্বিমুখী ও একটি আসনে ত্রিমুখী লড়াইয়ের আভাস পাওয়া যাচ্ছে। চট্টগ্রামের যে ৪টি আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থীরা সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছেন তারা হলেন চট্টগ্রাম-৬ (রাউজান) আসনে এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী (নৌকা), চট্টগ্রাম-৭ (রাঙ্গুনিয়া) আসনে ড. হাছান মাহমুদ (নৌকা), চট্টগ্রাম-৯ (কোতোয়ালী-বাকলিয়া) আসনে ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল (নৌকা) ও চট্টগ্রাম-১৩ (আনোয়ারা) আসনে সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ (নৌকা)। বর্তমানে নির্বাচনী মাঠে তাদের একচ্ছত্র আধিপত্য দেখা যাচ্ছে। দলের নেতাকর্মী ও সমর্থক একাট্টা হয়ে তাদের জন্য কাজ করছেন। এতে তাদের বিজয় অনেকটা নিশ্চিত হয়ে উঠেছে বলে স্ব-স্ব আসনের ভোটারেরা জানিয়েছেন। অন্যদিকে এসব আসনে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীরা প্রচার-প্রচারণায় তেমন একটা প্রতিদ্বন্দি¦তা গড়ে তুলতে পারেনি। তাই অনেকটা পরিষ্কার হয়ে গেছে আগামী ৭ জানুয়ারির দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে এসব আসনে নৌকার প্রার্থীরা বিজয়ের পথে রয়েছেন।

অপরদিকে চট্টগ্রামের যে ১১টি আসনে দ্বিমুখী লড়াইয়ের আভাস মিলছে সেগুলো হচ্ছে- চট্টগ্রাম-১ (মিরসরাই) আসনে মাহবুব উর রহমান রুহেল (নৌকা) এর সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক মিরসরাই উপজেলা চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা গিয়াসউদ্দিনের (ঈগল)। চট্টগ্রাম-২ (ফটিকছড়ি) আসনে খাদিজাতুল আনোয়ার সনির (নৌকা) সাথে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা হোসাইন মুহাম্মদ আবু তৈয়বের (তরমুজ) মধ্যে ত্রিমুখী লড়াই হবে। চট্টগ্রাম-৩ (সন্দ্বীপ) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য মাহফুজুর রহমান মিতার (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে স্বাচিপ কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি স্বতন্ত্র প্রার্থী ডা. জামাল উদ্দিন চৌধুরীর (ঈগল)। চট্টগ্রাম-৪ (সীতাকু-) আসনে এসএম আল মামুন (নৌকা) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী লায়ন মো. ইমরানের (ঈগল) মধ্যে দ্বিমুখী লড়াইয়ের আভাস পাওয়া গেছে। চট্টগ্রাম-৫ (হাটহাজারী) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য ও জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ (লাঙ্গল) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মুহাম্মদ শাহজাহান চৌধুরীর (কেটলি) মধ্যে দ্বিমুখী লড়াইয়ের আভাস পাওয়া যাচ্ছে। চট্টগ্রাম-৮ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) আসনে নগর আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ স্বতন্ত্র প্রার্থী সিডিএ’র সাবেক চেয়ারম্যান আবদুচ ছালামের (কেটলি) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে সাবেক কাউন্সিলর ও আওয়ামী লীগ নেতা বিজয় কুমার চৌধুরীর (ফুলকপি)। চট্টগ্রাম-১০ (খুলশী, পাহাড়তলী, হালিশহর) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য মহিউদ্দিন বাচ্চুর (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে সাবেক সিটি মেয়র ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ মনজুর আলমের (ফুলকপি)। চট্টগ্রাম-১১ (পতেঙ্গা-বন্দর) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য এমএ লতিফের (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে স্বতন্ত্র প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা কাউন্সিলর জিয়াউল হক সুমনের (কেটলি)। চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসনে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোতাহেরুল ইসলাম চৌধুরীর (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে স্বতন্ত্র প্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য সামশুল হক চৌধুরীর (ঈগল)। চট্টগ্রাম-১৪ (চন্দনাইশ) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য নজরুল ইসলামী চৌধুরীর (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল জব্বার চৌধুরীর (ট্রাক)। চট্টগ্রাম-১৫ (সাতকানিয়া-লোহাগাড়া) আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামুদ্দিন নদভীর (নৌকা) সাথে দ্বিমুখী লড়াই হবে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল মোতালেবের (ঈগল)।

এদিকে এখন পর্যন্ত চট্টগ্রামের একটি আসনে ত্রিমুখী লড়াইয়ের তথ্য পাওয়া গেছে। আসনটি হচ্ছে চট্টগ্রাম-১৬ (বাঁশখালী)। এ আসনে আওয়ামী লীগের বর্তমান সংসদ সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী (নৌকা),  স্বতন্ত্র প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুজিবুর রহমান (ঈগল) ও  আরেক স্বতন্ত্র প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল্লাহ কবির লিটনের (ট্রাক) মধ্যে ত্রিমুখী লড়াইয়ের আভাস পাওয়া গেছে।

 

 

পূর্বকোণ/এসি

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট