চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২১ মে, ২০২৪

সর্বশেষ:

এবার গ্যাস সংকটে বন্ধ সিইউএফএল

সুমন শাহ, আনোয়ারা

৭ মে, ২০২৩ | ১১:১০ পূর্বাহ্ণ

উৎপাদনে যাওয়ার দেড় মাসের মাথায় ফের বন্ধ হলো দেশের বৃহত্তম রাষ্ট্রীয় সার কারখানা চিটাগাং ইউরিয়া ফার্টিলাইজার কোম্পানি (সিইউএফএল)। তবে এবার গ্যাস সংকটের কারণে এটি বন্ধ হয়েছে বলে জানিয়েছেন কারখানার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মিজানুর রহমান। গতকাল শনিবার বিকালে বিষয়টি নিশ্চিত করে তিনি জানান, ‘গত ৫ এপ্রিল থেকে ৫ মে পর্যন্ত যুক্তরাজ্যের একটি বিশেষজ্ঞ দলের তত্ত্বাবধানে সিইউএফএল কারখানার কনভার্টার ক্যাটালিস্ট পরিবর্তন করা হয়। পরবর্তীতে ক্যাটালিস্ট এমোনিয়া উৎপাদন উপযোগী করে তোলার ও রিডাকশনের জন্য হালদার টপসো, ডেনমার্ক থেকে আগামী ১০ মে একটি বিশেষজ্ঞ টিম কারখানায় আসার কথা রয়েছে। কিন্তু কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি হঠাৎ করে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করে দিয়েছে। এতে করে বিদেশি বিশেষজ্ঞ টিমের ক্যাটালিস্ট পরিবর্তনের কাজ সম্পাদন করা নিয়ে অনিশ্চতায় পড়েছি আমরা।’ তবে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর উৎপাদনে যাওয়ার দেড় মাসের মাথায় গ্যাস সংকটের কারণে আবারও সার কারখানাটির উৎপাদন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় প্রতিদিন প্রায় আড়াই থেকে তিন কোটি টাকার মত ক্ষতি গুনতে হবে বলে জানিয়েছে কারখানা কর্তৃপক্ষ। সিইউএফএল কারখানা সূত্র জানায়, কারখানার সার উৎপাদন বন্ধ থাকায় প্রতিদিন আড়াই থেকে তিন কোটি টাকার বেশি লোকসান গুনতে হচ্ছে। গত ২৭ মার্চ গ্যাস থেকে গ্যাস সংকটে বন্ধ হয়ে যায় কারখানা। কারখানাটি চালু থাকলে দৈনিক ১ লাখ মেট্রিক টন এমোনিয়া ও ১ হাজার ৭ শ মেট্রিক টন ইউরিয়া উৎপাদন করতে সক্ষম। বর্তমানে কারখানায় গ্যাসসহ বিভিন্ন যান্ত্রিক ত্রুটি নিরসনে প্রতিবছর প্রায় তিন থেকে সাড়ে তিন লক্ষ মেট্রিক টন ইউরিয়া সার উৎপাদন হচ্ছে। এরমধ্যে গ্যাস সংকটসহ বিভিন্ন যান্ত্রিক ক্রটি থাকার পরও বিগত অর্থ বছরে কারখানাটিতে প্রায় ২ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন ইউরিয়া সার উৎপাদন করে। সারাদেশে ইউরিয়া সারের চাহিদা বছরে প্রায় ২৬ লাখ মেট্রিক টন। এরমধ্য সিইউএফএলসহ বিসিআইসি’র অন্যান্য কারখানা প্রায় ১০ লাখ মেট্রিক টন ইউরিয়া সার উৎপাদন করে। বাকি ১৬ লাখ মেট্রিক টন ইউরিয়া সার বিদেশ থেকে আন্তর্জাতিক মূল্যে আমদানি করতে হয়। এভাবে সরকারকে আন্তর্জাতিক দামে বছরে প্রতি টন প্রায় ৬০ হাজার থেকে ৭০ হাজার টাকায় ইউরিয়া সার আমদানি করতে হয়। এদিকে পাশর্^বর্তী সার কারখানা কর্ণফুলী ফার্টিলাইজার কোম্পানি লিমিটেড কাফকোকে নিরবচ্ছিন্ন গ্যাস সরবরাহ করা হলেও কিছুদিন পরপরই রাষ্ট্রীয় সার কারখানা চিটাগাং ইউরিয়া ফার্টিলাইজার কোম্পানির (সিইউএফএল) উৎপাদন বন্ধ থাকায় নানান প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। সিইউএফএল’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক মিজানুর রহমান বলেন, ‘গ্যাস সংকটসহ নানান কারণে কারখানার উৎপাদন বন্ধ হয়ে পড়লে বিভিন্ন মেশিন ও যন্ত্রাংশে মরিচা পড়ে ও বিকল হয়ে যায়। এতে ক্ষতির মুখে পড়ে কারখানাটি। আমরা বিষয়টি কেডিসিএল কর্তৃপক্ষকে চিঠির মাধ্যামে জানিয়েছি এবং গ্যাস সরবরাহের জন্য তাদের অনুরোধও করেছি।’

পূর্বকোণ/এ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট