চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১৮ জুন, ২০২৪

আবারও বিশ্বকাপের সেরা সাকিব

স্পোর্টস ডেস্ক

১৮ জুন, ২০১৯ | ১:৩২ পূর্বাহ্ণ

বিশ্বকাপে ফর্মের তুঙ্গে আছেন বিশ্বসেরা অল-রাউন্ডার। টানা চার ম্যাচে তার ইনিংস পঞ্চাশ ছাড়িয়েছে। এর মধ্যে দুটি আবার সেঞ্চুরি। এর আগে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে বড় ব্যবধানে হারের ম্যাচে ম্যাজিক ফিগার ছুঁয়েছিলেন সাকিব। গতকাল চাপের মুখে আরেকবার নিজের জাত চেনালেন তিনি। উইন্ডিজের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে নিজের ক্যারিয়ারের ৪৫তম হাফ সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন ৪০ বলে ৭ বাউন্ডারিতে। এই অর্ধশতককে সেঞ্চুরিতে রুপান্তর করতে গিয়ে তিনি ৮৩ বলে মোট ১৩ বাউন্ডারি হাঁকান। এই রানের পথে তিনি বাংলাদেশের দ্বিতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে ৬ হাজার রান পূরণ করেছেন। চলতি আসরে আগের চার ইনিংসে তিনি করেছিলেন যথাক্রমে- ৭৫, ৬৪ এবং ১২১ রান। সাকিব ২২ গজে থাকা মানেই যেন নিত্য নতুন রেকর্ড। তামিম ইকবালের পর দ্বিতীয় বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে মর্যাদার ছয় হাজারি ক্লাবে ঢুকে পড়লেন তিনি। শুধু তাই নয়, ব্যাক্তিগত অর্জনে সাকিব এখন বিশ^কাপের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। অ্যারন ফিঞ্চ ও রোহিত শর্মাকে ছাড়িয়ে এবারের বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড গড়েছেন সাকিব আল হাসান। গতকালের আগে পাঁচ ম্যাচে ৩৪৩ রান নিয়ে এবারের বিশ্বকাপে রান সংগ্রহে শীর্ষে ছিলেন অস্ট্রেলয়ান অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। আর তিন ম্যাচে ৩১৯ রান নিয়ে দ্বিতীয় পজিশনে ছিলেন রোহিত শর্মা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে ফিঞ্চকে ছাড়িয়ে যেতে সাকিবের প্রয়োজন ছিল ৭৪ রান। গতকাল একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে অ্যারন ফিঞ্চ ও রোহিত শর্মাকে ছাড়িয়ে যান সাকিব। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে থিতু হওয়ার পর থেকেই একের পর এক রেকর্ড গড়ে যাচ্ছেন সাকিব আল হাসান। বিশ্বকাপের আগে বিশ্বসেরার মুকুট ফিরে পান বাংলাদেশ দলের এই তারকা ক্রিকেটার। ছয় হাজার রান থেকে মাত্র ২৩ রান পিছিয়ে গতকাল ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ব্যাটিং করতে নেমেছিলেন সাকিব।
এ বারের আসরে এরই মধ্যে আরো কয়েকটি মাইলফলক ছোঁয়া হয়ে গেছে সাকিবের। বাংলাদেশের জার্সিতে তৃতীয় ক্রিকেটার হিসেবে ২০০ ওয়ানডে খেলা ও দ্বিতীয় বোলার হিসেবে ২৫০ উইকেট নেওয়ার স্বাদ পেয়েছেন তিনি। চলতি বিশ্বকাপে দুর্দান্ত ফর্মে আছেন ৩২ বছর বয়সী তারকা। মাহমুদউল্লাহর পর দ্বিতীয় বাংলাদেশি হিসেবে বিশ্বকাপে জোড়া সেঞ্চুরি হাঁকানোর কীর্তিও গড়েছেন তিনি। বল হাতে নিয়েছেন ৫ উইকেট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরি তুলে নেওয়ার পথে উরুর পেছনের দিকে চোট পেয়েছিলেন সাকিব। ফলে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তার মাঠে নামা নিয়ে তৈরি হয়েছিল শঙ্কা। বৃষ্টির বাধায় সে ম্যাচটি অবশ্য মাঠেই গড়ায়নি। তবে আশার কথা হলো ক্যারিবিয়ানদের মোকাবেলা করার আগে পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠেন তিনি। ২০০৬ সালের আগস্টে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে অভিষেক হয়েছিল বাঁহাতি সাকিবের। সেই থেকে এখন পর্যন্ত প্রায় ১৩ বছর দীর্ঘ ক্যারিয়ারে খেলেছেন ২০১ ম্যাচ। ৩৬.৬৬ গড়ে রান করেছেন ৬ হাজার ৩২। সেঞ্চুরি ৯টি, হাফসেঞ্চুরি ৪৪টি। তার উইকেটসংখ্যা ২৫৫টি।

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট