চট্টগ্রাম শনিবার, ২০ এপ্রিল, ২০২৪

সর্বশেষ:

দেওয়ানহাট-চামুদরিয়া সড়ক

অবশেষে সংস্কারে বরাদ্দ ২০ কোটি টাকা

মো. দেলোয়ার হোসেন, চন্দনাইশ

১৬ জুন, ২০১৯ | ১:৩২ পূর্বাহ্ণ

স্থানীয় সাংসদ নজরুল ইসলাম চৌধুরীর একান্ত প্রচেষ্টায় প্রায় ২০ কোটি টাকা ব্যয়ে উপজেলার দেওয়ানহাট-বৈলতলী সড়কের সংস্কার কাজের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ইতিমধ্যে টেন্ডার প্রক্রিয়া শেষ করে ঠিকাদার নিয়োগ করা হয়েছে।
সরেজমিনে দেখা যায়, উপজেলার চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের দেওয়ানহাট থেকে শুরু হয়ে সড়কটি সাতবাড়িয়া মুহুরীহাট, বৈলতলী ইউনুচ মার্কেট, সাতঘাটিয়া পুকুরপাড় হয়ে চামুদরিয়া বাজার পর্যন্ত বিস্তৃত অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সড়ক। এ সড়ক দিয়ে চন্দনাইশের দোহাজারী, সাতবাড়িয়া, বৈলতলীসহ বিভিন্ন এলাকার লোকজন চট্টগ্রাম শহর এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় যাতায়াত করে থাকে। সড়কটি দিয়ে বিভিন্ন স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা, প্রাথমিক বিদ্যালয় ও চন্দনাইশ সদর হয়ে বিভিন্ন এলাকায় শত শত লোকজন এ সড়ক দিয়ে চলাচল করে থাকে।
গত ২০১৪ সালে দেওয়ানহাট হতে বৈলতলী ইউনুচ মার্কেট পর্যন্ত সড়কটি সংস্কার করা হয়। কিন্তু মাত্র ৩ বছর অতিবাহিত হওয়ার পর পর সড়কটির বিভিন্ন অংশে কার্পেটিং উঠে গিয়ে গর্তে পরিণত হয়েছে। এতে যানবাহন চলাচল দারুণভাবে ব্যাহত হচ্ছে।
বিষয়টি অনুধাবন করে এলাকাবাসীর দাবির প্রেক্ষিতে স্থানীয় সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম চৌধুরীর ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় অবশেষে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগ থেকে প্রায় ২০ কোটি টাকা ব্যয়ে সড়কটি সংস্কারের জন্য সকল প্রক্রিয়া ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার শুষ্ক আবহাওয়া দেখে সংস্কার কাজ শুরু করবেন বলে জানিয়েছেন উপজেলা প্রকৌশলী বিল্লাল হোসেন।
গাড়ির চালকেরা জানান, সড়কের বেহাল দশার কারণে গাড়ির যন্ত্রাংশ নষ্ট হওয়ার পাশাপাশি অতিরিক্ত ভাড়া দিতে হচ্ছে যাত্রীদের। সামান্য বৃষ্টি হলেই সড়কে পানি জমে থাকে। সড়ক দিয়ে যানবাহন চলাচল করার সময় সড়কের পাশে থাকা দোকান, ক্রেতা, চলাচলকারী পথচারীদের কাদা পানিতে একাকার হয়ে কাপড়-চোপড় নষ্ট হয়ে যেত।

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট