চট্টগ্রাম শনিবার, ০৪ এপ্রিল, ২০২০

বই পড়ে পুরস্কৃত ৫ সহ¯্রাধিক শিক্ষার্থী 1

৭ মার্চ, ২০২০ | ৩:৫১ পূর্বাহ্ণ

বই পড়ে পুরস্কৃত ৫ সহ¯্রাধিক শিক্ষার্থী

বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র পরিচালিত স্কুল ছাত্রছাত্রীদের বইপড়া কর্মসূচির আওতায় ২০১৯ শিক্ষাবর্ষে চট্টগ্রাম মহানগরীর ৯৩টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৫,১২৫ জন শিক্ষার্থীকে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বই পড়ার জন্য গ্রামীণফোনের সহযোগিতায় পুরস্কার দেয় বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র। গতকাল চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন মিউনিসিপ্যাল মডেল হাই স্কুল এন্ড কলেজ প্রাঙ্গণে এই পুরস্কার বিতরণ উৎসব সম্পন্ন হয়।
চট্টগ্রাম মহানগরীর ৯৩টি স্কুলের পুরস্কার বিজয়ী মোট ৫১২৫ জন শিক্ষার্থীকে স্বাগত পুরস্কার, শুভেচ্ছা পুরস্কার, অভিনন্দন পুরস্কার ও সেরাপাঠক পুরস্কার এই চারটি ক্যাটাগরিতে পুরস্কার প্রদান করা হয়। প্রথম পর্বে ৪৬টি স্কুলের ২৪৮৩ জন শিক্ষার্থী ও দ্বিতীয় পর্বে ৪৭টি স্কুলের ২৬৪২ জন শিক্ষার্থী পুরস্কার পেয়েছে। তাদের মধ্যে মোট স্বাগত পুরস্কার পেয়েছে ২৫০২ জন, শুভেচ্ছা পুরস্কার পেয়েছে ১৫১৩ জন, অভিনন্দন পুরস্কার পেয়েছে ৮৮১ জন এবং সেরাপাঠক পুরস্কার পেয়েছে ২২৯ জন। সেরাপাঠক পুরস্কার বিজয়ী ২২৯ জনের মধ্যে লটারীর মাধ্যমে ২৩ জনকে প্রদান করা হয় ২০০০ টাকা সমমূল্যের বইয়ের একটি করে বিশেষ পুরস্কার। এছাড়াও লটারীর মাধ্যমে ৪ জন অভিভাবককেও একই ধরণের বিশেষ উপহার প্রদান করা হয়।
এই উৎসবে প্রধান অতিথি ছিলেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, বিশিষ্ট কথাসাহিত্যিক আবুল মোমেন, স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য প্রফেসর মোহাম্মদ আলী নকী, কথাসাহিত্যিক ও গবেষক খন্দকার স্বনন শাহরিয়ার, নাজমুল হক ডিউক, গ্রামীণফোনের জেনারেল ম্যানেজার (সাসটেইনএবিলটি) ফারজানা রহমান, গ্রামীণফোন চট্টগ্রাম সার্কেল বিজনেস হেড মোহাম্মদ শরীফ মাহমুদ খান, মো. আব্দুল হক, প্রফেসর আবদুল আলীম।
অনুষ্ঠানে চসিক মেয়র প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথিদের সঙ্গে নিয়ে উৎসবের উদ্বোধন করেন।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিটি মেয়র পুরস্কারপ্রাপ্ত ছাত্রছাত্রী, তাদের অভিভাবক ও শিক্ষকদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, মুজিববর্ষে এই পুরস্কার বিতরণী একটা মাইল ফলক। শুধু একাডেমিক বই পড়লে চলবে না এর পাশাপাশি সাহিত্যের অন্যান্য বই পড়ার প্রতি তিনি গুরুত্বারোপ করেন।
বিশিষ্ট কথাসাহিত্যিক আবুল মোমেন পুরস্কারপ্রাপ্তছাত্র-ছাত্রীদের উদ্দেশ্য বলেন, শুধু পাঠ্য বই পড়লে হবে না এর বাহিরে অন্যান্য বই পড়তে হবে তোমরাই আগামী দিনের দেশকে সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করবে।
গ্রামীণফোনের চট্টগ্রাম সার্কেলের বিজনেস হেড মোহাম্মদ শরীফ মাহমুদ খান পুরস্কারপ্রাপ্ত ছাত্রছাত্রীদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, নিজেকে বা দেশকে উন্নত করার জন্য বই পড়ার কোনো বিকল্প নাই।
গ্রামীণফোনের জেনারেল ম্যানেজার, সাসটেইনএবিলটি ফারজানা রহমান বলেন, বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের বইপড়া কার্যক্রমের সাথে গ্রামীণফোন যুক্ত থাকতে পেরে গর্বিত।
দিনব্যাপী অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের যুগ্ম পরিচালক (প্রোগ্রাম) মেসবাহ উদ্দিন আহমেদ সুমন।-বিজ্ঞপ্তি

The Post Viewed By: 172 People

সম্পর্কিত পোস্ট