চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

২১ জানুয়ারি, ২০২৩ | ৪:৫১ অপরাহ্ণ

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি

শত চেষ্টা করেও বাঁচানো গেল না ১৪ মাস বয়সী আয়েশাকে

খাগড়াছড়ির গুইমারায় শত চেষ্টা করেও বাঁচানো গেল না ১৪ মাস বয়সী আয়েশাকে। আজ শনিবার (২১ জানুয়ারি) সকালে নিজ বাড়িতেই তার মৃত্যু হয়।

 

জানা যায়, অন্যান্য শিশুর মত স্বাভাবিকভাবে জন্ম নিলেও ৪৫ দিন বয়স থেকে পরিবার বুঝতে পারে আয়েশার মাথায় পানি জমে অস্বাভাবিকভাবে বড় হয়ে যাচ্ছে। চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন হাসপাতালে গিয়ে জানতে পারে আয়েশার হাইড্রোকে প্লাস হয়েছে। অপারেশন করতে ব্যয় ভার বহন করা পরিবারের পক্ষে অসম্ভব হওয়ায় চিকিৎসার আশা ছেড়ে দিয়ে বাড়িতে নিয়ে আসে আয়েশাকে।

 

এমন খবর শুনে ২৩ বিজিবি যামিনিপাড়া জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল এবিএম জাহিদুল করিম তাৎক্ষণিক চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে ভর্তি করার ব্যবস্থা করে দেন। এরপর অপারেশনসহ দুই মাস হাসপাতালে রাখার সকল ব্যয়ভারও নিজের কাঁধে তুলে নেন। এছাড়া তার সার্বক্ষণিক খোঁজ খবরও রাখেন। সফল অপারেশন শেষে গত সপ্তাহে আয়েশা সুস্থ হলে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র নিয়ে নিজ বাড়িতে আনা হয়। ক’দিন ভাল থাকলেও আজ শনিবার (২১ জানুয়ারি) সকালে হঠাৎ করে সবাইকে কাঁদিয়ে না ফেরার দেশে চলে যায় আয়েশা।

 

মৃত্যুর সংবাদ শুনে সাথে সাথে শোকাহত পরিবারকে সান্ত্বনা দিতে তার বাড়িতে ছুটে যান ২৩ বিজিবি যামিনিপাড়ার জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল এবিএম জাহিদুল করিম।

পূর্বকোণ/পিআর/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট