চট্টগ্রাম শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

৮ জানুয়ারি, ২০২৩ | ৫:০৬ অপরাহ্ণ

থানচি সংবাদদাতা

ডিম পাহাড়ের ২০০ ফুট নিচে পড়ল গাড়ি, স্বাস্থ্যের পরিচালকসহ আহত ৫

বান্দরবানে থানচি ও আলীকদম উপজেলার সীমান্তে ডিম পাহাড় থেকে একটি পাজেরো গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ২০০ ফুট নিচে পড়ে গেছে। এতে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের পরিচালকসহ (অর্থ) তার পরিবারের ৫ সদস্য আহত হয়েছেন।

 

আহতরা হলেন- স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের পরিচালক (অর্থ) মো. নিয়াজুর রহমান (৫২), পরিচালকের স্ত্রী জেনেফা রহমান নাসরিন (৪২), ছেলে পার্থিব রহমান (২১), মেয়ে ফাইরুজ নাফিয়া (২০) ও গাড়ি চালক নূরনবী (৪২)।

 

আলিকদম ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন মাস্টার আবদুর কাদের ও থানচির স্টেশন মাস্টার মোহাম্মদ ইসমাইল সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে আলীকদম থানচি সড়কের ২১ কিলোমিটার ডিম পাহাড়ের গভীর খাদ থেকে আহতদের উদ্ধার করে আলীকদম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়েছে।

 

আলিকদম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মাহাতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেন, গতকাল থানচি উপজেলায় ইনজেকটেবল ও অন্যান্য পরিবার পরিকল্পনা পদ্ধতিবিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালায় ট্রেইনার হিসেবে অংশগ্রহণ করার জন্য পরিবার নিয়ে তিনি থানচিতে আসেন। প্রশিক্ষণ শেষে আজ একই কর্মশালায় অংশ নিতে তিনি আলীকদমে যাচ্ছিলেন। সকাল সাড়ে ৯টায় তার গাড়িটি থানচি ও আলীকদম উপজেলার সীমান্তে ডিম পাহাড়ের ২০০ ফুটি নিচে পড়ে যায়। স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে দুই উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা ছুটে গিয়ে স্যারসহ তার পরিবারে সদস্যদের অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়েছি। পরে তাদের কক্সবাজারে পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু স্যারের গাড়ি চালক গুরুতর আহত হওয়ায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

আলীকদম থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন সরকার বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিচালকের গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হাড়িয়ে ডিম পাহাড় থেকে প্রায় ২০০ ফুট গভীর নিচে পড়ে যায়। সড়ক দুর্ঘটনাকবলিত হয়ে পরিবারের সকলে আহত হয়। কিন্তু গাড়ির চালক ছাড়া পরিচালকের পরিবারের কেউ গুরুতর আহত হয় নি।

পূর্বকোণ/পিআর/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট