চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারি, ২০২৩

সর্বশেষ:

৩০ নভেম্বর, ২০২২ | ৬:৩৮ অপরাহ্ণ

রাউজান সংবাদদাতা

রাউজানে ধান মাড়াইকল উল্টে নিহত ১, আহত ৩

রাউজান হলদিয়া ভিলেজ সড়কে ধান মাড়াইকল উল্টে ১ জন নিহত ও ৩ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) দিবাগত রাত ২টায় গর্জনিয়া মাদ্রাসার দক্ষিণ পাশের মোড়ে এ ঘটনা ঘটে। এতে চালক অক্ষত থাকলেও সুমন নামে একজন বুধবার ভোর ৬ টায় চমেকে মারা যান। হলদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

 

জানা গেছে,  তারা ৫ জন ধান মাড়াই কাজ শেষে উত্তর হলদিয়া থেকে তাদের গাড়িটি নিয়ে সর্তা ব্রিজ সংলগ্ন বাসায় ফিরছিলেন। পথে গাড়িটি দুর্ঘটনার শিকার হয়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গাড়িটি দ্রুত ও বেপরোয়া গতিতে চালানোর কারণে দুর্ঘটনায় পড়ে। এতে নেত্রকোণার কলমাকান্দা উপজেলার, কইলাটি ইউপির ৬ নং ওয়ার্ডস্থ কাকুরিয়া গ্রামের মৃত মুহাম্মদ ফরিদের ছেলে সুমন (২৫) ভোর ৬টায় চমেকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

 

জানা যায়, গাড়ি থেকে মেশিনের গরম পানি তার শরিরে পড়ে কোমর থেকে পা পর্যন্ত পুড়ে গেছে এবং দু’পা গাড়ির চাপে ভেঙ্গে গেছে। প্রথমে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে গহিরা জে,কে হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে তাদের চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেন জে.কে. হাসপাতালের কর্তব্যরত ডাক্তার। সেখানে ভোর ৬ টায় মারা যান সুমন।

 

নেত্রকোণার শ্রমিক জাকির হোসেন বলেন, আহতরা হলেন নকতি পাড়া গ্রামের আরজ আলী তালুকদারের ছেলে মামুন (২২), ৩ নং ওয়ার্ডের মু. আবদুল হেকিম হাফানিয়ার ছেলে হৃদয়, নকতিপাড়া গ্রামের আবদুর রাজ্জাকের ছেলে মুহাম্মদ আলী রাজ (১৭)। তারা সবাই নেত্রকোণার কলমাকান্দা উপজেলার কইলাটি ইউপির বাসিন্দা।

 

অক্ষত ড্রাইভার মুহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন কলমাকান্দা উপজেলার নকতি পাড়া গ্রামের জালালের ছেলে। জানা গেছে আহত, নিহত সকলেেই একই ইউনিয়নের বাসিন্দা। তারা গত ১৫ দিন আগে মাঝি আবুল কালামের মাধ্যমে মাসিক বেতনে ধান মাড়াই কাজে যোগ দিয়েছিলেন। মাঝির ৩টি গাড়িতে ঐ এলাকার ২০ জন শ্রমিক কাজ করে। এদিকে হলদিয়া ভিলেজ সড়কটিতে প্রতিদিন বেপরোয়া গাড়ি চলাচলের অভিযোগ করেছেন স্থানীয়রা। 

 

পূর্বকোণ/জাহেদ/রাজীব/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট