চট্টগ্রাম শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর, ২০২২

৭ নভেম্বর, ২০২২ | ১১:৫৩ অপরাহ্ণ

সীতাকুণ্ড সংবাদদাতা

সীতাকুণ্ডে অভাব অনটন ও ঋণের চাপে বিষপানে যুবকের আত্মহত্যা

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে সংসারের অভাব অনটনে দিশেহারা হয়ে বিষপানে আত্নহত্যা করেছেন এক যুবক। সোমবার (৭ নভেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার সৈয়দপুর ইউনিয়নের পূর্ব সৈয়দপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

নিহত যুবকের নাম লোকনাথ দেবনাথ (৩৫)। তিনি ঐ এলাকার মৃত নগেন্দ্র দেবনাথের ছেলে।স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সীতাকুণ্ডের সৈয়দপুর ইউনিয়নের পূর্ব সৈয়দপুর গ্রামের বাসিন্দা লোকনাথ বাঁশ ও বেতের কাজ করে জীবন ধারণ করে আসছিল। কিন্তু তার সংসারে তেমন আর্থিক স্বচ্চলতা ছিল না। এ কারণে তিনি একাধিক এনজিও থেকে ঋণ গ্রহণ করেন। এদিকে সাম্প্রতিক সময়ে তার ব্যবসা ভালো চলছিল না। এতে সংসার চালানোই মুশকিল হয়ে যায়। এর মধ্যে এনজিওগুলোর ঋণ পরিশোধের চাপে তিনি মানসিকভাবে মারাত্নক চাপে পড়ে যান। সোমবার বিকালেও তিনি নিজ বাজারে যান। সন্ধ্যায় বাড়ি থেকে ঘরে ফিরে বাড়ির লোকদের অজান্তে তিনি বিষপান করেন। এক পর্যায়ে ঘরের লোকজন তাকে দেখতে পেয়ে দ্রুত সীতাকুণ্ড হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

লোকনাথের গ্রামের বাসিন্দা প্রতিবেশি যুবক মো. ইকবাল নিহতের পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, একদিকে অভাব অনটন আর অন্যদিকে এনজিও ঋণের চাপে দিশেহারা হয়ে লোকনাথ বিষপানে আত্নহত্যা করেছেন।

ওই এলাকার ইউপি সদস্য ডা. সজল শীল লোকনাথের মৃত্যুর কথা নিশ্চিত করে বলেন, লোকনাথ একজন পরিশ্রমী যুবক ছিল। বাঁশ ও বেড়ার কাজ করত সে। সংসারে তার দুটি সন্তান ও স্ত্রী আছে। সে দরিদ্র একথা ঠিক। কিন্তু এতটা সমস্যায় ছিল বলে জানতাম না। সোমবার বিকালেও সে বাজারে আসে। পরে ঘরে গিয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। তবে এনজিও ঋণের বিষয়টি তিনি নিশ্চিত না বলে জানান।

সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তোফায়েল আহমেদ জানান, এ আত্নহত্যার বিষয়ে তাকে (রাত সাড়ে ১০টা) কেউ জানায়নি। তাই বিস্তারিত জানেন না।

 

পূর্বকোণ/সৌমিত্র/মামুন/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট