চট্টগ্রাম শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

৮ নভেম্বর, ২০১৯ | ১১:০৯ পূর্বাহ্ন

অনলাইন ডেস্ক

৪ নম্বর সংকেত

শনিবার মধ্যরাতে আঘাত হানতে পারে ‘বুলবুল’  

আরো শক্তিশালী হয়ে প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিয়েছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’। আগামীকাল শনিবার (৯ নভেম্বর) মধ্যরাতের দিকে ঘূর্ণিঝড়টি দেশের খুলনা-বরিশাল অঞ্চলের ওপর আঘাত হানতে পারে বলে। উপকূলে আঘাত হানার আগে কিছুটা দুর্বল হয়ে যেতে পারে ‘বুলবুল’ জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

এ কারণে উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব ধরনের নৌযানকে অতিসত্ত্বর নিরাপদ আশ্রয় নেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। একই কারণে দেশের সমুদ্র বন্দরগুলোকে ৪ নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে এ কথা জানানো হয়েছে। রাতে আবহাওয়া অধিদপ্তরের বিশেষ বুলেটিনে জানানো হয়, বুলবুল চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৭৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার থেকে ৭৩৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৭৩৫ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৭০৫ কিলোমিটার দক্ষিণে অবস্থান করছিল।

পূর্বাভাসে বলা হয়, ঘূর্ণিঝড়টি আরো শক্তিশালী হয়ে উত্তর উত্তর-পশ্চিম দিকে এগিয়ে আসতে পারে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৬৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৯০ কিলোমিটার। যা ১০০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রবল ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের কাছে সাগর খুবই উত্তাল রয়েছে। ৯ নভেম্বর রাতে অথবা ১০ নভেম্বর সকালের দিকে আঘাত হানার সম্ভাবনা রয়েছে বলে আবহওয়া অফিসসূত্রে জানা গেছে।

আবহাওয়াবিদদের ধারণা, ঘূর্ণিঝড় বুলবুল এখন যেভাবে এগোচ্ছে তাতে করে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের খুলনা এবং বরিশাল উপকূলের দিক দিয়ে আঘাত হানতে পারে। তবে এর গতিবেগ বা শক্তি সিডরের মতো হবে না। বুলবুলের কারণে বাতাসের গতিবেগ ১০০ কিলোমিটারের মধ্যে থাকার সম্ভাবনা বেশি। এটি ৯ নভেম্বর রাতে অথবা ১০ নভেম্বর সকালের দিকে উপকূলে আঘাত করতে পারে। তবে যতই দুর্বল বা শক্তিশালী হয়ে আসুক না কেনো; ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের কারণে খুলনা, বরিশাল উপকূলসহ ঢাকা ও এর আশপাশের অঞ্চলে বৃষ্টি হতে পারে।

 

 

 

পূর্বকোণ/এম

The Post Viewed By: 194 People

সম্পর্কিত পোস্ট