চট্টগ্রাম সোমবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২০

সর্বশেষ:

১১ ডিসেম্বর, ২০১৯ | ১:৪৬ পূর্বাহ্ন

নিজস্ব ক্রীড়া প্রতিবেদক

নির্বাহী সদস্য পদে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহারের আবেদন করলেন প্রবীন কুমার ঘোষ

সিজেকেএস নির্বাচন

সিজেকেএস নির্বাচনকে ঘিরে একের পর এক ঘটনা ঘটেই চলেছে। বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সহ-সভাপতি নির্বাচিত হয়েও মো হাফিজুর রহমান যথাসময়ে তার মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করে নেন। এখন ঐ পদে আবারো নির্বাচন হবে পূর্ব নির্ধারিত ১৮ ডিসেম্বরের সিজেকেএস নির্বাচনের পর। কিন্তু গতকাল নির্বাহী সদস্য পদে প্রবীন কুমার ঘোষ মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করার জন্য নির্বাচন কমিশনারের কাছে আবেদন করলে, নাটকীয়তায় রুপ নেয় সিজেকেএস নির্বাচন। কেননা, তিনি আবেদনটা করেন নির্ধারিত সময় পার হয়ে যাবার একদিন পর। মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহারের পূর্ব নির্ধানিত তারিখ ছিল ৯ ডিসেম্বর। গতকাল সন্ধ্যে ৭টা ৩০ মিনিটে প্রবীণ কুমার ঘোষ সিটি মেয়র এবং সিজেকেএস সাধারণ সম্পাদকসহ অন্যান্য কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করে নেন। তিনি ব্যবসায়িক কারণে, শহরের বাইরে অবস্থান করায় নির্ধারিত দিনে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করতে পারেননি বলে উল্লেখ করে বলেন, ব্যক্তিগত কারণে এবং খেলাধুলার বৃহত্তর স্বার্থে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করেন।

এদিকে বিশ^স্থ সুত্রে জানা গেছে, এ প্রত্যাহারের বিষয়টি সম্পূর্ণ নির্বাচন কমিশনার ও চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এ জেড এম শরীফ হোসেনের উপর নির্ভর করছে। এদিকে যেহেতু বৈধ মনোনয়ন পত্রের তালিকা যখন প্রকাশিত হয়ে গেছে, তখন নির্বাচন হতেই হবে এবং না হওয়ার কোন সুযোগ নাই বলে, কেউ কেউ মন্তব্য করেছেন। আবার অনেকে এমনও বলছেন, নিশ্চয় আইনের কোন ফাঁক ফোকর রয়েছে, তা না হলে, কেনই বা ঘটা করে প্রবীণ কুমার ঘোষ মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করবেন। এদিকে এমনও শোনা যাচ্ছে, নিশ্চয় নির্র্বাহী সদস্য না হয়েও বিভিন্ন উপ-কমিটির ভাল কোন পদে সম্পাদক হওয়ার আশ^াসে প্রবীণ কুমার ঘোষ হয়তো মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করে নেন। মানুষের মুখতো আর বন্ধ করা যাবে না। অনেকে অনেক কথা বলবেন, বিশ^াস করা, না করাটা আপনার ব্যাপার। সময়ই সব বলে দেবে কি হবে শেষ পর্যন্ত।

The Post Viewed By: 36 People

সম্পর্কিত পোস্ট