চট্টগ্রাম বুধবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৬ নভেম্বর, ২০১৯ | ১:৩৮ পূর্বাহ্ন

‘৪-১ গোলে হারাটা দুঃখজনক’

বিশ্বকাপ ফুটবলের বাছাই পর্বে ‘ই’ গ্রুপে নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে সুবিধা করতে পারেনি বাংলাদেশ। প্রথমার্ধে আশা জাগিয়েও শক্তিশালী ওমানের কাছে হারতে হয়েছে ৪-১ গোলে। আগের দুই ম্যাচের পারফরম্যান্সে এত বড় ব্যবধানে হারের প্রত্যাশা একেবারেই ছিল না। কোচ জেমি ডেও মানতে পারছেন না এই ফল। বিশ্বকাপ বাছাইয়ে ঘরের মাঠে কাতারের বিপক্ষে লড়াই করে হেরেছিল বাংলাদেশ। এরপর ভারতের মাটিতে তো জয়ের সমান ড্র নিয়ে ফেরে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। আগের দুই ম্যাচের পারফরম্যান্স ওমান থেকে অন্তত ড্র করে ফেরার আত্মবিশ্বাস জুগিয়েছিল খেলোয়াড়দের মনে।

যদিও মাসকটের সুলতান কাবুস স্পোর্টস কমপ্লেক্সে বৃহস্পতিবার দ্বিতীয়ার্ধে অসহায় আত্মসমর্পণ করে বাংলাদেশ। প্রথমার্ধে ওমানকে রুখে দিতে পেরেছিল জামাল ভূঁইয়ারা। কিন্তু বিরতির পর স্বাগতিকদের একের পর এক আক্রমণে ভেঙে পড়ে সব প্রতিরোধ। হারের হতাশা নিয়ে গতকাল সকালেই দেশে ফিরেছে বাংলাদেশ দল। যন্ত্রণা থাকলেও শিষ্যদের পারফরম্যান্সে সন্তুষ্ট জেমি ডে। দেশে ফিরে ইংলিশ কোচ বলেছেন, ‘৪-১ গোলে হারাটা দুঃখজনক। কিন্তু এতে ছেলেদের দোষ দেওয়া যাবে না। তারা তাদের সেরাটা দিয়েছে। তাছাড়া প্রত্যেক খেলায় সামর্থ্যরে চেয়ে বেশি নৈপুণ্য তাদের কাছ থেকে আশা করা ঠিক হবে না।’ ফিফা র‌্যাংকিংয়ে ওমান ৮৪, আর বাংলাদেশ রয়েছে ১৮৪ নম্বরে। র‌্যাংকিংই বলে দিচ্ছে দুই দলের শক্তির ব্যবধান। জেমি তাই বলেছেন, ‘ওমান আমাদের চেয়ে অনেক শক্তিশালী দল। তাদের বিপক্ষে ভালো খেলাটাও কঠিন ছিল। যদি ম্যাচটি ড্র হতো, তাহলে সেটা হতো আশানুরূপ ফল। কিন্তু সবাইকে বাস্তবতা বুঝতে হবে। র‌্যাংকিংয়ে অনেক এগিয়ে থাকা দলের বিপক্ষে লড়াই করাই কঠিন ছিল।’

The Post Viewed By: 36 People

সম্পর্কিত পোস্ট