চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৪ নভেম্বর, ২০১৯ | ২:২৩ পূর্বাহ্ন

স্পোর্টস ডেস্ক

ইন্দোরে বাংলাদেশের টেস্ট লড়াই শুরু আজ

ভারতে প্রথমবারের মতো কোন পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে গিয়ে সাদা বলের লড়াইয়ে সমালোচকদের প্রশংসা কুড়িয়েছে টাইগাররা। প্রায় প্রতিটি ম্যাচেই সমানতালে লড়াই ছিল সত্যিই উপভোগ্য, শুধু দুর্ভাগ্য জেতার মতো অবস্থায় থেকেও নাগপুরের ম্যাচটি না জেতায় টি-টোয়েন্টি সিরিজ খোয়াতে হয়েছে ১-২ ব্যবধানে। সাদা বলের যুদ্ধ শেষ, এবার লাল বলের দ্বৈরথ। ধুম-ধাড়াক্কায় অধিনায়ক ছিলেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। বদল ঘটেছে সেখানে, লংগার ভার্সনে নেতৃত্ব দেবেন পকেট ডায়নামো খ্যাত মুমিনুল হক। দেখার বিষয় নিজেদের মাটিতে বরাবরই শক্তিশালী ভারতকে কতটা বাধা উপহার দিতে পারে টাইগাররা। আজই ‘টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ’ যুগে প্রবেশ করছে বাংলাদেশ। নতুন চ্যালেঞ্জ, বাড়তি গুরুত্ব। আজ ইন্দোরে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশ-ভারত সিরিজের প্রথম টেস্ট। এই ম্যাচ দিয়ে আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে অভিষেক হবে টিম টাইগার্সের। হলকার স্টেডিয়ামে খেলা শুরু সকাল ১০টায়। খেলা দেখাবে স্টার স্পোর্টস ও জিটিভি।

টেস্টে ভারত এক নম্বর দল। চ্যাম্পিয়নশিপ শুরুর পর এপর্যন্ত খেলা পাঁচ ম্যাচেই জিতেছে বিরাট কোহলির দল। ভারতে এসে সবশেষ সিরিজে দাঁড়াতেই পারেনি দক্ষিণ আফ্রিকা। সেই ভারতকে তাদের ডেরায় ঢুকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারবে র‌্যাঙ্কিংয়ে অষ্টম হিসেবে চ্যাম্পিয়নশিপে আসা বাংলাদেশ? টি-টোয়েন্টিতে নবম দেখায় এসেছিল প্রথম জয়। টেস্টে ইন্দোরে বাংলাদেশ-ভারতের সাদা পোশাকের লড়াইটা মুখোমুখি দশম। বৃষ্টির আশীর্বাদে দুটি ম্যাচ ড্র করা গেছে, তবে দীর্ঘ পথচলায় জয়ের মঞ্চ কখনোই তৈরি করতে পারেনি বাংলাদেশ। দুই দলের মাঝে সর্বশেষ টেস্ট হয়েছিল ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারিতে, হায়দ্রাবাদে। সিরিজের একমাত্র টেস্ট ম্যাচটি ভারত জিতে নেয় ২০৮ রানে। হারলেও পঞ্চম দিনের চা-বিরতির আগ পর্যন্ত লড়াই করতে পারায় বাহবা পেয়েছিল বাংলাদেশ! সেই দলটির সঙ্গে বর্তমান দলের মিল খুঁজে পাওয়া কঠিন। সেই ম্যাচের সেরা একাদশে থাকা তামিম ইকবাল, সাকিব আল হাসান, সৌম্য সরকার, সাব্বির রহমান, তাসকিন আহমেদ, কামরুল ইসলাম রাব্বি নেই এবারের টাইগার স্কোয়াডেই। বর্তমান দলটি তারুণ্য নির্ভর। সাদমান ইসলাম, সাইফ হাসান, নাঈম হাসান, ইবাদত হোসেন, আবু জায়েদ রাহির মতো খেলোয়াড় সুযোগ পেয়েছেন টেস্ট স্কোয়াডে। অধিনায়ক হয়ে ভারত সফরে যাবেন এমনটি স্বপ্নেও ভাবেননি মুমিনুল হক। সাকিব নিষিদ্ধ হওয়ায় হুট করে তার কাঁধে তুলে দেয়া হয়েছে নেতৃত্ব-ভার। টেস্ট দলের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান মনে করেন সাকিব-তামিমের না থাকা দলে তিনজনের অনুপস্থিতির সমান। ‘সাকিব ভাইয়ে ব্যাটিং-বোলিং আলাদা করলে দুইজন। তামিম ভাই নেই। আমি বলব তিনজন সেরা ক্রিকেটার আমাদের দলে নেই। তারপরও আমাদের ভালো খেলতে হবে। আশা করবো দলের সব খেলোয়াড় ভালো কিছু করতে উদগ্রীব ও ইতিবাচক থাকবে।’ মুমিনুলের শেষ কথাটির অনুরণন যেন দলের সবার মাঝে ছড়িয়ে পড়ে বড় চ্যালেঞ্জের আগে সেটিই এখন চাওয়া।

The Post Viewed By: 60 People

সম্পর্কিত পোস্ট