চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

৫ মে, ২০১৯ | ১:৫৬ পূর্বাহ্ণ

টাইগারদের সাফল্যের চাবিকাঠি সাকিব ও তামিম : ইয়ান পন্ট

২০১১ বিশ্বকাপে ঘরের মাঠে বাংলাদেশের প্রধান কোচ ছিলেন ইয়ান পন্ট। ৮ বছর পর আরেক বিশ্বকাপের দোরগোড়ায় সেই স্মৃতি স্মরণ করার সাথে সাথে বললেন এবারের বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সাফল্যের চাবিকাঠি হতে পারেন সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবাল। ২০১০ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ঘরের মাঠে সিরিজে ৪-০ ব্যবধানে জয় পেয়েছিল সাকিবের দল। সেটাই ছিল বাংলাদেশের প্রথম কিউইদের ধবলধোলাই করার রেকর্ড। এরপর ২০১৩ সালেও নিউজিল্যান্ডকে ধবলধোলাই করেছে বাংলাদেশ। নিউজিল্যান্ডকে ধবলধোলাই ও জিম্বাবুয়ে সিরিজ হারিয়ে বিশ্বকাপে পা রেখেছিল বাংলাদেশ। টাইগারদের সবগুলো ম্যাচই দেশের মাটিতে অনুষ্ঠিত হয়েছে। আয়ারল্যান্ড, নেদারল্যান্ডস ও শক্তিশালী ইংল্যান্ডকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে যাওয়ার স্বপ্ন দেখিয়েছিল বাংলাদেশ। যদিও শেষ পর্যন্ত আর সেটা হয়নি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে বাংলাদেশের সাবেক কোচ পন্ট নিউজিল্যান্ড ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজ জয়ের স্মৃতিচারণ করেন। তিনি আরো বলেন, এবারের বিশ্বকাপে বাংলাদেশের তুরুপের তাস হবে সাকিব ও তামিম। পন্টের টুইট বার্তাটি, ‘৪-০ ব্যবধানে নিউজিল্যান্ডকে বাংলাওয়াশ এবং ৩-১ ব্যবধানে জিম্বাবুয়েকে সিরিজ হারিয়ে ২০১১ বিশ্বকাপে দারুণ প্রস্তুতি নিয়ে তৈরি হয়েছিল বাংলাদেশ। আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ এ অভিজ্ঞ দুই ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবাল হবে বাংলাদেশের সাফল্যের চাবিকাঠি।’ সাকিব ও তামিম দুজনই ২০০৭ সাল থেকে সবগুলো বিশ্বকাপে খেলেছেন। ২০০৭, ২০১১ ও ২০১৫ তিনটি বিশ্বকাপে ২১ ম্যাচে ৫৪০ রান নিয়ে বাংলাদেশিদের মধ্যে বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রানের মালিক সাকিব। সর্বোচ্চ ২৩টি উইকেটও সাকিবের ঝুলিতে। ২১ ইনিংসে তামিমের সংগ্রহ ৪৮৩ রান, যা বাংলাদেশিদের মধ্যে তৃতীয় সর্বোচ্চ। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২০ ইনিংসে ৫১০ রান মুশফিকুর রহিমের।-ইন্টারনেট

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট