চট্টগ্রাম শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

৬ অক্টোবর, ২০২২ | ১১:২২ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব ক্রীড়া প্রতিবেদক

রাস আবু আবুদ স্টেডিয়াম তৈরিই হয়েছে ভাঙার জন্য!

কাতারের দোহা বন্দরের উপকন্ঠে ৯৭৪টি শিপিং কন্টেইনার দিয়ে গঠিত রাস আবু আবুদ স্টেডিয়ামে ২০২২ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার-ফাইনাল পর্যন্ত সাতটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। এটিই ইতিহাসের প্রথম ফুটবল স্টেডিয়াম যা আসলে ভেঙে ফেলার জন্যই তৈরি। সবগুলো কন্টেইনারই পরিশোধিত স্টিল থেকে তৈরি এবং গায়ে ৯৭৪ সংখ্যাটি লেখা, যা কাতারের ডায়ালিং কোড এর প্রতীক বিশ্বকাপ শেষে স্টেডিয়ামের বিভিন্ন অংশ, রিমুভেবল সিট, কন্টেইনার এবং ছাদ পর্যন্ত ভেঙে ফেলা হবে এবং কাতার কিংবা কাতারের বাইরের অন্য কোনো খেলার অনুষ্ঠানে বা সাধারণ অনুষ্ঠানে ব্যবহার করা হবে।

রাস আবু স্টেডিয়ামের একজন প্রজেক্ট ম্যানেজার, মোহাম্মদ আল আতওয়ান বলেন, ৪০ হাজার মানুষের ধারণক্ষমতার এই ভেন্যুর প্রতিটি জিনিসই ভেঙে সরিয়ে নেওয়া সম্ভব এবং সেগুলো দিয়ে ২০ হাজার ধারণক্ষমতাসম্পন্ন আরও দুটি স্টেডিয়াম বানানো যাবে। আর এটাই এই স্টেডিয়ামের সৌন্দর্য।

কাতার-২০২২ এর বাকি সব ভেন্যুর মতো রাস আবু আবুদ স্টেডিয়ামের এ অস্থায়ী বন্দোবস্ত এই প্রমাণ করে, দেশটি কম সময়ে কম খরচে টেকসই অবকাঠামো নির্মাণের দিকে নজর দিয়েছে। আয়োজকদের তথ্যমতে, ৪৮ লাখ বর্গফুটের এই স্টেডিয়ামের কাজ শুরু হয় ২০১৭ সালে।

আল-আতওয়ান মনে করেন, এই স্টেডিয়ামের মূল অবস্থানটি খুবই সুবিধাজনক এবং এখানে একাধিক প্রজেক্টের কাজ করা যাবে বিধায় এর দারুণ ভবিষ্যত আছে।

পূর্বকোণ/আর

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট