চট্টগ্রাম রবিবার, ২৭ নভেম্বর, ২০২২

২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২ | ৭:৫৭ অপরাহ্ণ

স্পোর্টস ডেস্ক

রাকিবের একমাত্র গোলে কম্বোডিয়াকে হারাল বাংলাদেশ

কম্বোডিয়ার মাঠে রাকিব হোসেনের একমাত্র গোলে প্রীতি ম্যাচে জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। প্রথমার্ধের ২৪ মিনিটে এক গোলের পর পুরো ম্যাচে আর কোন দল গোলবারের দেখা পায়নি। এ ম্যাচ জিতে র‌্যাংকিংয়ে এগোতে পারে জামাল ভূঁইয়ার দল।

বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা ৬টায় নম পেনের মরোডক টেকো ন্যাশনাল স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হয়।

 

ম্যাচের শুরুতে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ ছিল কম্বোডিয়ার। পরে ১৪ মিনিটে বাংলাদেশ গোলের সুযোগ পেয়েও তা কাজে লাগাতে পারেনি। বিশ্বনাথ ঘোষের লম্বা থ্রো-ইন থেকে জামাল ভুঁইয়ার প্লেসিং লক্ষ্যে থাকেনি। অল্পের জন্য বাইরে দিয়ে গেছে। এরপর ১৯ মিনিটে পাওয়া কম্বোডিয়ার দ্বিতীয় সুযোগটি বাংলাদেশের গোলকিপার আনিসুর রহমান জিকোর কল্যাণে সফলতার মুখ দেখেনি। সিন কাকাডার ডান পায়ের বুলেট গতির শট একহাত দিয়ে ফিস্ট করে কোনমতে জালের বাইরে পাঠিয়ে দেন বলটি।

২৪তম মিনিটে ডান প্রান্ত থেকে মতিন মিয়ার পাস ধরে আড়াআড়ি শটে বল জালে জড়ান রাকিব। এরপর বিরতিতে যায় দু‘দল। দ্বিতীয় হাফেও আক্রমণে এগিয়ে ছিল জামাল ভুঁইয়ারা। প্রতিপক্ষের গোলপোস্টে লক্ষ্য করে বেশ কিছু শট নেয় লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। তবে গোলের দেখা পায়নি। শেষ পর্যন্ত ওই ১-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে বাংলাদেশ।

 

কম্বোডিয়ার বিপক্ষে সবশেষ দেখায় বাংলাদেশের ১-০ ব্যবধানে জয়ের সুখস্মৃতি আছে। যদিও সে ম্যাচের একমাত্র গোলদাতা রবিউল ইসলাম নেই এ দলে। তবে এ নিয়ে কোন চিন্তা ছিল না বলে ম্যাচের আগে জানিয়েছিল দল।

কম্বোডিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশ এর আগে মোট চার ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল। যেখানে জামালদের তিন জয়ের বিপরীতে একটিও হার নেই। ২০০৬ সালে এএফসি চ্যালেঞ্জ কাপে ২-১ গোলে জয় পায় বাংলাদেশ। ২০০৭ সালে পরেরবার দেখায় ১-১ গোলে ড্র হয় ম্যাচটি। পরের দুটি ম্যাচই লাল-সবুজরা জিতে ১-০ গোলের ব্যবধানে।

এরপর বাংলাদেশ চলে যাবে নেপালে। আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর দ্বিতীয় ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচে দেশটির মুখোমুখি হবে জামাল ভুঁইয়ারা।

 

পূর্বকোণ/এএস

শেয়ার করুন