চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

২১ মে, ২০১৯ | ১:০৭ পূর্বাহ্ণ

স্পোর্টস ডেস্ক

তরুণদের পারফরম্যান্সে খুশি রোডস

বাংলাদেশ দলের সাম্প্রতিক সব সাফল্য অভিজ্ঞ ৫ ক্রিকেটারকে ঘিরেই আবর্তিত। তামিম ইকবাল, মাশরাফি মুর্তজা, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহ। অবশ্য ধীরে ধীরে এই পরিস্থিতি বদলাতে শুরু করেছে। ত্রিদেশীয় সিরিজে চ্যাম্পিয়ন হওয়াটা তারই প্রমাণ। সৌম্য সরকার আর মোসাদ্দেকের বিধ্বংসী ব্যাটিং সেই ভরসাই দিচ্ছে পুরো দলকে। তাতে বিশ্বকাপে ১৫ সদস্যের স্কোয়াড থেকে ভরসা পাচ্ছেন হেড কোচ স্টিভ রোডস। তার মতে বাংলাদেশ এখন আর পঞ্চপা-বের দল নয়। ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান ছিলেন না। ব্যাটে-বলে যার উপস্থিতি প্রভাবকের ভূমিকায় থাকে সেই সাকিবের অনুপস্থিতি কোনও প্রভাবই ফেলতে পারেনি। অথচ তার না থাকা মানেই ছিলো আত্মবিশ্বাসের ঘাটতি। তবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ফাইনালে সেই ঘাটতি পূরণে অগ্রণী ছিলেন তরুণ ওপেনার সৌম্য সরকার ও মোসাদ্দেক হোসেন। এই দুজনের বিধ্বংসী ব্যাটিংয়েই ২৪ ওভারে ২১০ রানের বিশাল সংগ্রহটা অনায়াসে তাড়া করেছে বাংলাদেশ। ৬ বার বহুজাতিক ফাইনালে বাংলাদেশ যা পারেনি সেই দলটাই এবার তা করে দেখালো ভবিষ্যৎ তারকাদের ঘাড়ে ভর দিয়ে। এমন স্বস্তিদায়ক পরিস্থিতি আত্মবিশ্বাসী করে তুলেছে কোচ রোডসকে, ‘যেভাবে তাড়া করে জিতেছি তা সত্যিই চমৎকার ছিলো। যদিও সহজ ছিলো না। এখানে আগে দুই থেকে তিনজন আছে যারা বিশেষ ইনিংস খেলেছে। কিন্তু মোসাদ্দেক যা করে দেখিয়েছে তাতে সবাইকে সে নত অবস্থানে করে রাখতে পারবে। এটাই আমাদের স্কোয়াডের শক্তিমত্তা। আর তা আমাদের বড় ম্যাচ জেতার আত্মবিশ্বাস দিচ্ছে এই দল নিয়েও।’ এই আত্মবিশ্বাই আবার নির্ভার করছে বাংলাদেশ হেড কোচকে। তিনি মনে করেন, ‘তার মানে এই স্কোয়াড নিয়ে বাংলাদেশ এখন খুব শক্তিশালী দল।এটাই আমরা চেয়েছি, শক্তিতে গভীরতা। আরও গভীরতা চাই, তাহলে লোকে আর পঞ্চপা-ব নিয়ে কথা বলবে না।’

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 229 People

মন্তব্য দিন :

সম্পর্কিত পোস্ট