চট্টগ্রাম রবিবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২১

১৫ মে, ২০১৯ | ৮:৫৬ অপরাহ্ণ

মানুষের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলা যাবে না : হাইকোর্ট

ভেজাল খাদ্যপণ্যে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর উপাদানের উপস্থিতির তথ্য উঠে আসার প্রেক্ষাপটে হাইকোর্ট বলেছেন: স্বাস্থ্যই যদি ঠিক না থাকে, তাহলে জাতি কীভাবে এগোবে। মানুষের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলা যাবে না। এসব ব্যাপারে আমরা কোনো ছাড় দেব না।

বুধবার (১৫ মে) বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের দুধ, দইয়ে ক্ষতিকর মাত্রার অনুজীব, টেট্রাসাইক্লিন, কীটনাশক ও সীসার উপস্থিতি নিয়ে জারি করা রুল শুনানিতে বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চ এমন মন্তব্য করেন।
বাজারে প্রচলিত তরল দুধের ৯৬টির মধ্যে ৯৩টির নমুনাতে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর রাসায়নিক উপাদান পাওয়া গেছে উল্লেখ করে নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ হাইকোর্টে একটি প্রতিবেদন দাখিল করে। এ সময় আদালত বলেন, কোন কোন কোম্পানির দুধ বা দুগ্ধজাত খাদ্যপণ্যে ভেজাল রয়েছে, তা আমরা চিহ্নিত করতে চাই।
আদালত আরো বলেন: গণমাধ্যমকে ধন্যবাদ দেওয়া উচিত। কারণ তারা বিষয়গুলো সামনে না আনলে আমরা তো এ বিষয়ে জানতেই পারতাম না।
আজ আদালতে নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন ফরিদুল ইসলাম। বিএসটিআই’র পক্ষে ছিলেন আইনজীবী সরকার এম আর হাসান মামুন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি এটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিনউদ্দিন মানিক। আর দুদকের পক্ষে ছিলেন সৈয়দ মামুন মাহবুব।
আদালতে দাখিল করা প্রতিবেদনের বিষয়ে ডেপুটি এটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিন উদ্দিন মানিক জানান, বাজার থেকে সংগৃহীত কাঁচা তরল দুধের ৯৬টি নমুনার মধ্যে ৯৩টিতেই সীসা ও এন্টিবায়েটিক অনুজীব পাওয়া গেছে। প্যাকেটজাত দুধের ৩১টি নমুনার মধ্যে ১৮টিতেই ভেজাল পাওয়া গেছে। এছাড়া উচ্চমাত্রার বিভিন্ন রাসায়নিক পাওয়া গেছে দুধ ও দইয়ে। কোন কোন কোম্পানি দুধে এই ভেজাল বা রাসায়নিক দ্রব্য মেশানোর সঙ্গে জড়িত, প্রতিবেদনে তাদের নাম-ঠিকানা না দেয়ায় সেই তালিকাও দাখিলের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

বিজ্ঞাপন

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 375 People

সম্পর্কিত পোস্ট