চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৯

২০ নভেম্বর, ২০১৯ | ১০:৩৯ পূর্বাহ্ন

অনলাইন ডেস্ক

মিসর থেকে সেই ফ্লাইট এসেছে, পেঁয়াজ আসেনি

মিসরের কায়রো থেকে জেদ্দা হয়ে সৌদি এরাবিয়ান এয়ারলাইনসের ফ্লাইটটি (এসভি ৩৮০২) হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছছে মঙ্গলবার দিবাগত রাতে। যাত্রীবাহী এ ফ্লাইটে পেঁয়াজ আসার কথা জানিয়েছিল বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। তবে ফ্লাইটটি ঢাকায় পৌঁছুলেও সেই ফ্লাইটে কোনো পেঁয়াজ আসেনি। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ঢাকার সৌদি এরাবিয়ান এয়ারলাইন্স অফিস সূত্রে জানা গেছে, এসভি ৩৮০২ ফ্লাইটটি রাত ১২টার দিকে ঢাকায় এসেছে। এই ফ্লাইটে কোনো পেঁয়াজ আসেনি। বৃহস্পতিবার (২১ নভেম্বর) ঢাকায় সৌদি এরাবিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি কার্গো ফ্লাইট আসবে। সেই ফ্লাইটে পেঁয়াজ আসতে পারে। এদিকে বিমানবন্দরের হ্যান্ডলিং এজেন্ট বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স রাতে পেঁয়াজ আসার খবরে জনবল প্রস্তুত রেখেছে। পেঁয়াজ দ্রুত খালাস করতে ঢাকা কাস্টম হাউসের পক্ষ থেকেও প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে বলে জানান সহকারী কমিশনার সাজ্জাদ হোসেন। তিনি বলেন, আমাদের কাছে এখনো কেউ পেঁয়াজের চালান খালাস করার আবেদন জানায়নি। তবে ২৪ ঘণ্টা আমাদের প্রস্তুতি রয়েছে। পেঁয়াজ বিমানবন্দরে পৌঁছলে দ্রুত শুল্ক কার্যক্রম সম্পন্ন করতে সহায়তা করা হবে।

প্রসঙ্গত, দেশে দৈনিক প্রায় ৬ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজের চাহিদা রয়েছে। প্রতিবছর আট থেকে দশ লাখ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি করা হয়। বেশির ভাগই প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারত থেকে আমদানি করা হয়। ভারত পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করলে এবং মিয়ানমার পেঁয়াজের মূল্য কয়েকগুণ বাড়ালে বিকল্প হিসেবে মিসর ও তুরস্ক থেকে পেঁয়াজ আমদানি শুরু করে সরকার। সমুদ্রপথে পেঁয়াজ আসতে বেশি সময় লাগার কারণে আকাশপথে আনছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।

 

 

 

 

 

পূর্বকোণ/এম

The Post Viewed By: 188 People

সম্পর্কিত পোস্ট