চট্টগ্রাম রবিবার, ০৭ মার্চ, ২০২১

১২ অক্টোবর, ২০১৯ | ২:০৫ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা অফিস

আবরার খুন ভারতের পালানোর পথে আসামি শামীম গ্রেপ্তার

‘ভারতে পালানোর সময়’ বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার আসামি শামীম বিল্লাহকে গতকাল গ্রেপ্তার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। সাতক্ষীরার ভোমরা সীমান্ত এলাকা থেকে গতকাল বিকেল ৪টার দিকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। গোয়েন্দা পুলিশ-ডিবির একটি টিম তাকে গ্রেপ্তার করে বলে নিশ্চিত করেছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) জনসংযোগ শাখার উপকমিশনার (ডিসি) মাসুদুর রহমান। শামীমের বাড়ি সাতক্ষীরার শ্যামনগরের বিরুলিয়া। তিনি ভারতে পালানোর চেষ্টা করছিলেন বলে ধারণা পুলিশের।

অমিত সাহা-তোহা পাঁচদিনের রিমান্ডে : এদিকে, আবরার ফাহাদ রাব্বীকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের আইনবিষয়ক উপ-সম্পাদক অমিত সাহা ও বুয়েটের শিক্ষার্থী হোসেন মোহাম্মদ তোহার পাঁচদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। গতকাল তাদের ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে পুলিশ। এ সময় পলাতক আসামিদের গ্রেফতার ও মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক ওয়াহিদুজ্জামান। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম সরাফুজ্জামান আনছারী পাঁচদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রিমান্ডে ১২ জন : বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ রাব্বীকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় গ্রেফতার আরও ১২ জন রিমান্ডে রয়েছেন। তারা হলেন- বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদি হাসান রাসেল, সহ-সভাপতি মুহতামিম ফুয়াদ, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অনিক সরকার, ক্রীড়া সম্পাদক মেফতাতুল ইসলাম জিওন, গ্রন্থনা ও গবেষণা সম্পাদক ইশতিয়াক মুন্না, ছাত্রলীগ কর্মী মুনতামির আল জেমি, খন্দকার তাবাখখারুল ইসলাম তানভীর, মোজাহিদুর রহমান, মেহেদী হাছান রবিন,শামসুল আরেফিন রাফাত (২১), মো. মনিরুজ্জামান মনির (২১) ও মো. আকাশ (২১)।

আবরার হত্যায় এবার জিয়নের স্বীকারোক্তি : আসামী ইফতি মোশাররফ সকাল-এর পর এবার আবরার হত্যায় আদালতে স্বীকারোক্তি দিল মেফতাতুল ইসলাম জিয়ন। বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার মামলায় বুয়েট ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত ক্রীড়া সম্পাদক মেফতাতুল ইসলাম জিয়ন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। গতকাল ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারাফুজ্জামান আনছারীর আদালতে জবানবন্দি দেন তিনি। পরে তাকে কারাগারে পাঠান আদালত। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক ওয়াহিদুজ্জামান ফৌজদারি কার্যবিধি আইনের ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি রেকর্ড করার জন্য আদালতে আবেদন করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে জিওনের জবানবন্দি গ্রহণ করেন বিচারক। গত বৃহস্পতিবার স্বীকারোক্তি দেন আরেক আসামি ইফতি মোশাররফ সকাল। যিনি বুয়েট ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত উপ-সমাজসেবা সম্পাদক। গত ৮ অক্টোবর মেফতাতুল ইসলাম জিওনসহ ১০ জনের ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এর পরদিন আরো তিন জনের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 364 People

সম্পর্কিত পোস্ট