চট্টগ্রাম বুধবার, ০৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

সর্বশেষ:

২৫ ডিসেম্বর, ২০২২ | ১০:৪৩ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

‘বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে ২০০০ সালেই দেশ উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত হতো’

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, আমরা টার্গেট নিয়েছি ২০৪১ সালে বাংলাদেশকে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করবো। তবে আমি বিশ্বাস করি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বেঁচে থাকলে ২০০০ সালেই বাংলাদেশ উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত হতো।

রবিবার (২৫ ডিসেম্বর) কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া পৌরসভার নবনির্মিত ভবন উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

 

মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে অনেকেই তালি বাজিয়েছেন। নানা রকম কথা বলেছেন। মুক্তিযোদ্ধাদের অসম্মানিত করেছেন। রিকশাওয়ালা বানিয়েছেন। মুক্তিযুদ্ধের সকল স্মৃতিস্তম্ভ মুছে ফেলেছিলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেগুলো উদ্ধার করেছেন। তিনি নিজের জন্য নয়, এই জাতির জন্য সেগুলো উদ্ধার করেছেন।

তিনি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর শেখ হাসিনাকে আপনারই ক্ষমতায় নিয়ে এসেছেন। আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় টিকিয়ে রাখার দায়িত্ব আপনাদেরই। আজকে বাংলাদেশের ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ আছে। যোগাযোগ ব্যবস্থা আছে, হাসপাতাল আছে, অর্থনীতির উন্নতি আছে, ভাত আছে, কাপড় আছে। আমরা আজকে গর্বিত জাতি। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ চলছে। এই যুদ্ধের কারণে ৬ ডলারের গ্যাস হয়ে গেছে ৬০ ডলার। সারের দাম যেখানে ১৫০-২০০ ডলার ছিল সেখানে এখন ৬০০-৭০০ ডলার। আমাদের কৃষকদের শেখ হাসিনা ভর্তুকি দিয়ে সার দিচ্ছেন।

 

এসময বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কিশোরগঞ্জ-২ (কটিয়াদী-পাকুন্দিয়া) আসনের সংসদ সদস্য নূর মোহাম্মদ, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ রাসেল শেখ, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. জিল্লুর রহমান, পাকুন্দিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. রফিকুল ইসলাম রেনু, পাকুন্দিয়া উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রোজলিন শহীদ চৌধুরী, পাকুন্দিয়া পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম আকন্দ, ভৈরব পৌরসভার মেয়র ইফতেখার হোসেন বেনু, জেলা শ্রমিকলীগের উপদেষ্টা আতাউল্লাহ সিদ্দিক মাসুদ প্রমুখ।

 

পূর্বকোণ/মামুন/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট