চট্টগ্রাম শনিবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

২৭ ডিসেম্বর, ২০২০ | ৮:১৯ অপরাহ্ণ

আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন পাপুলের স্ত্রী-কন্যার

অবৈধ সম্পদ অর্জন ও অর্থপাচারের মামলায় আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন পেলেন সংসদ সদস্য (এমপি) কাজী শহিদ ইসলাম পাপুলের স্ত্রী সংরক্ষিত নারী সদস্য সেলিনা ইসলাম ও তার মেয়ে ওয়াফা ইসলাম। ঢাকার মহানগর সিনিয়র স্পেশাল জজ কে এম ইমরুল কায়েশের আদালতে রবিবার (২৭ ডিসেম্বর) আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন তারা। শুনানি শেষে বিচারক আগামী ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত তাদের অন্তর্বর্তীকালীন জামিন দেন।

এর আগে গত ২২ ডিসেম্বর বিচারপতি নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি আহমেদ সোহেলের হাইকোর্ট বেঞ্চ তাদের জামিন নামঞ্জুর করে আগামী ২৮ ডিসেম্বরের মধ্যে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণের নির্দেশ দেন। সে অনুযায়ী আজ রবিবার (২৭ ডিসেম্বর) বিকেলে তারা আত্মসমর্পণ করেন। এর আগে একই আদালত লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য কাজী শহিদ ইসলাম পাপুল ও তার স্ত্রী সংরক্ষিত নারী সদস্য সেলিনা ইসলামসহ চার জনের ৬১৭টি ব্যাংক হিসাব ফ্রিজ এবং ৯২টি তফসিলভুক্ত স্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ দেন।

দুদকের মামলায় অভিযোগ করা হয়, পাপুলের শ্যালিকা জেসমিন শিক্ষার্থী থাকাবস্থায় দুই কোটি ৩১ লাখ ৩৭ হাজার ৭৩৮ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত ১১ নভেম্বর দুদকের উপ-পরিচালক মো. সালাহউদ্দিন বাদি হয়ে দুই কোটি ৩১ লাখ টাকার অবৈধ সম্পদ ও ১৪৮ কোটি টাকার অর্থ পাচারের অভিযোগে লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য শহিদ ইসলাম পাপুল ও তার স্ত্রী সংরক্ষতি আসনের এমপি সেলিনাসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলার অন্যান্য আসামিরা হলেন-পাপুল, তার স্ত্রী সেলিনা ইসলাম, মেয়ে ওয়াফা ইসলাম ও সেলিনার বোন জেসমিন প্রধান৷

স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য শহিদ ইসলাম পাপুল বর্তমানে অর্থ ও মানবপাচারের অভিযোগে কুয়েতের কারাগারে আছেন ৷ গত ২৬ ফেব্রুয়ারি দুদক কাজী শহীদুল ইসলাম পাপুলের বিরুদ্ধে মানবপাচারসহ জ্ঞাত আয়-বহির্ভূত উপায়ে শত শত কোটি টাকা অর্জন করে হুণ্ডির মাধ্যমে বিদেশে পাচারের অভিযোগ অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নেয়।

 

পূর্বকোণ/আরপি

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 341 People

সম্পর্কিত পোস্ট