চট্টগ্রাম বুধবার, ২৭ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

১৫ ডিসেম্বর, ২০২০ | ৭:২৮ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

আরও ৬১ বীরাঙ্গনাকে মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় পাকিস্তানি বাহিনী ও রাজাকারদের হাতে নির্যাতিত আরও ৬১ জন নারী মুক্তিযোদ্ধার (বীরাঙ্গনা) তালিকা প্রকাশ করেছে সরকার। সোমবার (১৪ ডিসেম্বর) গেজেটের মাধ্যমে এক প্রজ্ঞাপন জারি করে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়।

এর আগে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) ৭০তম সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এ নিয়ে মোট ৪০০ জন বীরাঙ্গনা মুক্তিযোদ্ধা স্বীকৃতি পেলেন। মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি পাওয়া এসব বীরাঙ্গনারা এখন থেকে মাসিক ভাতাসহ মুক্তিযোদ্ধাদের মত অন্যান্য সরকারি সুযোগ-সুবিধা পাবেন।

রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব রথীন্দ্র নাথ দত্ত স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল (জামুকা) আইন-২০০২ এর ৭ (ঝ) ধারা অনুযায়ী প্রকৃত বীর মুক্তিযোদ্ধার তালিকা, সরকারের রুলস অব বিজনেস ১৯৯৬ এর সিডিউল-১-এর তালিকা ৪১ এর ৫ নম্বর ক্রমিকে প্রদত্ত ক্ষমতাবলে জামুকার ৭০তম সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক নারী মুক্তিযোদ্ধা (বীরাঙ্গনা) তালিকার গেজেট প্রকাশ করা হল।

৬১ নারী মুক্তিযোদ্ধারা হলেন- সিজু বেগম, বেগম আছকিরূন নেছা, আশালতা পাল, রেনুকা চক্রবর্তী, রেনু বেগম (মৃত), সাহেরা বেগম, জরিনা বিবি, রোপন বেওয়া, মোজেফা খাতুন, হাজেরা বেগম, ফুল বরু ওরফে ফুল বানু, মনোয়ারা বেগম, সালেহা বেগম, আনোয়ারা বেগম, ছৈতুন নেছা, রিজিয়া বেগম, জোবেদা (মৃত), হাচেন ভানু (মৃত), হাচন ভানু (মৃত), জয়ফুল (মৃত), ছকিনা খাতুন (মৃত), ফুল ভানু (মৃত), মনোয়ারা বেগম, জমিলা বেগম, তুলসী চন্দনা রায়, রাহেলা বেগম, মানিকজান, হালিমা বেগম, ইয়ারজান, সমর্থভান, রেখা বেগম, হাজেরা বেগম, হালিমা বেগম, ছায়েরা খাতুন, ফরিদা বেগম, লাইলী বেগম, ফাতেমা বেগম, আয়েশা বেগম, সালেহা খাতুন, তরুন বালা, মায়া রানী সাহা, হাজেরা বেগম, সুফিয়া বেগম, হোসনেয়ারা বেগম, জামিরুন নেছা, জয়নব বিবি, জয়তুন বেগম, হাজেরা বেগম, খুদেজা, রুকেয়া, মমতা, আলিপজান, রহিমা বেগম, নবিরুন বেগম, সিমন্তী রানী চন্দ, জোৎস্না বেগম, আসমা বেগম, মোছা. জামেনা খাতুন, আমেনা বেগম, সুমি বিশ্বাস ও গুরুদাসী মণ্ডল।

 

 

 

পূর্বকোণ/আরপি

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 142 People

সম্পর্কিত পোস্ট