চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ | ১২:৪০ পূর্বাহ্ন

অভিশংসনের তদন্ত : সরাসরি সম্প্রচার দেখছেন না ট্রাম্প

প্রেসিডেন্ট’র বিরুদ্ধে সামরিক ক্ষমতা অপব্যবহারের সাক্ষ্য

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : দৃঢ়তার সঙ্গে শীর্ষ দুজন মার্কিন কূটনীতিক সাক্ষ্য দিয়েছেন, ২০২০ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্প তাঁর সম্ভাব্য প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেনের বিরুদ্ধে ইউক্রেনকে তদন্ত করার আহ্বান জানিয়েছিলেন।
প্রেসিডেন্টের অভিশংসন তদন্তের শুনানি এবার নতুন করে টেলিভিশনে প্রচার করা হচ্ছে। খবর এএফপির।

মার্কিন ইতিহাসে এই নিয়ে চতুর্থবার অভিশংসনের প্রক্রিয়া চলছে। ট্রাম্প ডেমোক্রেটিক নেতৃত্বাধীন প্রতিনিধি পরিষদের এই তদন্তকে ‘ডাইনি নিধন অভিযান’ বলে উড়িয়ে দিয়েছেন।

তিনি বলেছেন, ‘খুব ব্যস্ত’ থাকায় তিনি জনশুনানির প্রথম পর্ব দেখতে পারেননি। ইউক্রেনের শীর্ষ মার্কিন কূটনীতিক উইলিয়াম টেলর গত বুধবার ইউক্রেনকে চাপ দেওয়ার ব্যাপারে ট্রাম্পের প্রচেষ্টা সম্পর্কে নতুন তথ্য নিয়ে হাউস ইন্টেলিজেন্স কমিটির সামনে সাক্ষ্য দেন। টেলর সাক্ষ্য দিয়েছেন, ট্রাম্প ইউক্রেনকে সাহায্য করার চেয়ে ইউক্রেনকে দিয়ে তদন্ত করানোর ব্যাপারে বেশি গুরুত্ব দিয়েছিলেন।

টেলর বলেছেন, ট্রাম্পের চিন্তাভাবনাজুড়ে এখন বাইডেনদের ব্যাপারে তদন্ত গুরুত্ব পাচ্ছে। ট্রাম্পের স্পষ্টবাদী সমালোচক ফ্রেশম্যান হাউস ডেমোক্র্যাট আলেকজান্দ্রিয়া ওকাসিও-কর্টেজ বলেন, টেলরের এই নতুন মন্তব্য প্রেসিডেন্টের জন্য চাপের কারণ হয়ে দাঁড়াবে। নিউইয়র্কের প্রতিনিধি সিএনএনকে বলেন, ট্রাম্প নিজেই এই ফোন কলগুলোর কয়েকটিতে অংশ নিয়েছিলেন।

এটি সরকারের ক্ষমতা ব্যবহারের সঙ্গে তাঁর জড়িত থাকার প্রমাণ দিচ্ছে। সুস্পষ্ট প্রমাণ পাওয়া গেলে প্রেসিডেন্টের অভিশংসন তদন্ত জোরদার হবে। নতুন অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে ট্রাম্প জবাব দেন, ‘এমন কথা প্রথমবার শুনলাম।’
শুনানি চলার সময় ক্যাপিটাল হিলের বাইরে বিক্ষোভ হয়েছে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে। আর লন্ডনে এক অনুষ্ঠানে সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটন বলেছেন, প্রকাশ্য এই শুনানি ট্রাম্পকে জনগণের সামনে নিশ্চিতভাবে বিভ্রান্তিকর ও লোক ঠকানো হিসেবে তুলে ধরবে।

এমন ঘটনার সাক্ষী হতে টিভি সেটের সামনে মার্কিনিদের উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো। শুধু মার্কিনিরাই নয় ইউক্রেনের জনগণও প্রকাশ্য এই শুনানি সম্পর্কে জানতে জড়ো হয়েছিল দেশটির পার্লামেন্টের সামনে। বিবিসি, সিএনএন, আল-জাজিরাসহ আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো সরাসরি সম্প্রচার করেছে এ শুনানি।
শুক্রবার আবারও প্রকাশ্যে শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। ওই শুনানিতে টেইলর জুনিয়রের প্রস্তাবিত আরেক সাক্ষী, ডেভিড হোমসকে উপস্থিত করা হবে বলে জানানো হয়েছে।

The Post Viewed By: 35 People

সম্পর্কিত পোস্ট