চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৭ অক্টোবর, ২০১৯ | ১:৪০ পূর্বাহ্ণ

পূর্বকোণ ডেস্ক

বিবিসির সেরা ১০০ নারীর তালিকায় রোহিঙ্গা ক্রিকেটার জেসমিন

এ বছরে বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রে থাকা যে ১০০ নারীর তালিকা তৈরি করেছে বিবিসি -তাতে স্থান পেয়েছেন মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে শরণার্থী হয়ে আসা পরিবারের সন্তান জেসমিন। বুধবার বিবিসির ২০১৯ সালের প্রভাবশালী একশ নারীর তালিকাটি বিবিসি অনলাইনে প্রকাশ করা হয়। পরিবেশ, জ্ঞান, নেতৃত্ব, সৃষ্টিশীলতা, খেলাধুলা ও পরিচয় এমন ছয় ক্যাটাগরিতে সারা বিশ্বের ১০০ নারীর নাম প্রকাশ করা হয়। এতে প্রত্যেকের সংক্ষিপ্ত পরিচয় তুলে ধরা হয়। সেখানে জেসমিনের দেশ পরিচয়ে যুক্তরাজ্য-বাংলাদেশ লেখা রয়েছে। জেসমিন হচ্ছেন একজন রোহিঙ্গা নারী – যে রোহিঙ্গাদের জাতিসংঘ বর্ণনা করেছে পৃথিবীর সবচেয়ে বেশি নিপীড়নের শিকার হওয়া সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠীর অন্যতম বলে। তার জন্ম বাংলাদেশের এক শরণার্থী শিবিওে এবং জন্মের কিছু আগেই তার বাবা মারা যান। জেসমিন আখতার যুক্তরাজ্যে আসেন একজন শরণার্থী হিসেবেই। ব্রিটেনে আসার পর ক্রিকেট খেলায় তিনি বিশেষ পারদর্শিতা দেখান। ব্র্যাডফোর্ড শহরে জেসমিন এবং তার বন্ধুরা মিলে শুধু এশীয় বংশোদ্ভূত মেয়েদের একটি ক্রিকেট দল গড়ে তোলেন। এ বছর একটি ক্রিকেট টুর্নামেন্ট হয়েছে প্রথম স্ট্রিট চাইল্ড ক্রিকেট ওয়ার্ল্ড কাপ নামে। সেবামূলক উদ্দেশ্যে চালু করা এই টুর্নামেন্টে ইংল্যান্ড দলের একজন খেলোয়াড় হিসেবে জেসমিনকে মনোনীত করা হয়। জেসমিন বলেন,

মুক্ত মানুষ হিসেবে প্রতিটি নিঃশ্বাস আপনাকে আরো বেশি আনন্দ দেয়। সেই অনুভূতি কেমন তা আমি জানি।

ভারতীয় নারীদের মধ্যে রয়েছেন: পারভিনা অঙ্গার (নলেজ ক্যাটাগরি), প্রগতি সিং ( লিডারশিপ), ভেনাডা শিবা (আর্থ), নাতাশা নোয়েল (আইডেন্টিটি), সুস্মিত মোহান্তি (নলেজ), শুভলক্ষী নন্দী (আইডেন্টিটি)। উল্লেখ্য, পারভিনা অঙ্গার জম্মু ও কাশ্মীরের বাসিন্দা।

এই তালিকায় পাকিস্তানি নারীদের মধ্যে দুজনের নাম। এরা হলেন : জলিলা হায়দার (লিডারশিপ)। তিনি পেশায় একজন আইনজীবী। অপরজন আফগান বংশোদ্ভূত পাকিস্তানি জারিফা গাফারি। এছাড়া রয়েছেন নেপালের উদ্যোক্তা বনিতা শর্মা (নলেজ) ও শ্রীলঙ্কার ডিজাইনার আচারিয়া পেইরিস (লিডারশিপ)।

আরও যারা আছেন ১০০ নারী ২০১৯ তালিকায়

পারভীনা আহাঙ্গার, মানবাধিকার কর্মী : পারভীনাকে ডাকা হয় ভারতশাসিত কাশ্মীরের আয়রন ‘লেডি’ বলে। ১৯৯০ সালে কাশ্মীরে ভারতের শাসনের বিরুদ্ধে যখন গণঅভ্যুত্থান তীব্র আকার নিয়েছিল – সেই সময় পারভীনার ছেলে নিখোঁজ হয়ে যায়। এরকম হাজার হাজার মানুষ তখন নিখোঁজ হয়েছিল। পারভীনা তখন একটি সংগঠন গড়ে তোলেন এপিডিপি নামে – যেটি হচ্ছে নিখোঁজ মানুষদের বাবা-মায়েদের একটি সমিতি। আগামী বছর পারভীনার ছেলের নিখোঁজ হবার ৩০ তম বার্ষিকী। পারভীনা বলছেন, তিনি এখনো তার ছেলেকে আবার দেখতে পাবার আশা ছেড়ে দেননি। তার কথা, ছেলেকে হারানোর সেই শোকই তাকে বিচার ও জবাবদিহিতা প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে অনুপ্রাণিত করে।
আমি পৃথিবীকে অপেক্ষাকৃত ভালো একটি জায়গায় পরিণত করতে চাই, বিশেষ করে নারীদের জন্য। আজকের দুনিয়ায় নারী ইস্যুকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়া আবশ্যিক, বিশেষ করে যুদ্ধ-সংঘাতপূর্ণ এলাকায় যারা বাস করছেন সেই সব নারীদের স্বার্থে।
কিমিয়া আলিজাদেহ, ইরান – এথলেট : কিমিয়া আলিজাদেহ হচ্ছেন প্রথম অলিম্পিক পদক জেতা ইরানি নারী। ইরান ১৯৪৮ সাল থেকে অলিম্পিক গেমসে অংশ নিচ্ছে, কিন্তু তায়েকানডো-তে কিমিয়া পদক জেতার আগে দেশটির কোন নারী এথলেটিক্সে পদক জেতেন নি।

যুক্তরাজ্যের ফিনান্সিয়াল টাইমস পত্রিকা মন্তব্য করেছে, ইরানী নারীর ব্যক্তিগত স্বাধীনতার গ-িকে সম্প্রসারিত করার ক্ষেত্রে সাহস যুগিয়েছে কিমিয়ার দৃষ্টান্ত।

গ্রেটা থুনবার্গ, সুইডেন, জলবায়ু পরিবর্তন রোধের আন্দোলনকারী : গত বছর আগস্ট মাসে ১৫ বছরের স্কুলবালিকা গ্রেটা থুনবার্গ স্কুল বর্জন করে সুইডিশ পার্লামেন্টের সামনে বিক্ষোভ করে। সেই একজনের বিক্ষোভ শেষ পযন্ত— বিশ্বব্যাপি জলবায়ু পরিবর্তন-বিরোধী আন্দোলনে পরিণত হয় – যাতে লক্ষ লক্ষ কিশোর-তরুণ যোগ দিয়েছে। তার কথা : আমরা এক বিরাট দুর্যোগের সম্মুখীন, তাই এখন কী বলা যাবে বা যাবে না, এ নিয়ে না ভেবে স্পষ্ট করে কথা বলার সময় এসেছে।

লিউবভ সোবোল, রাশিয়ার দুর্নীতিবিরোধী কর্মী : লিউবভ একজন আইনজীবী, যিনি রাশিয়ায় কথিত দুর্নীতির তদন্ত করেন। সামাজিক মাধ্যম বা ইউটিউবের ভেতর দিয়ে তার কাজ দেখে থাকেন ১০ লক্ষেরও বেশি লোক। এ বছর গ্রীষ্মকালে তিনিসহ বেশ কয়েকজন বিরোধীদলীয় প্রার্থীকে মস্কোর স্থানীয় নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করা থেকে নিষিদ্ধ করা হয় – যার প্রতিবাদে হাজার হাজার লোক বিক্ষোভ করে।

লিউবভ সোবোল বলেন, আমি ভবিষ্যতের কথা ভাবি না, আমরা যে দেশে থাকি, সেখানে যে কোন কিছুই ঘটতে পারে। কিন্তু আমি বিশ্বাস করি আমরা জয়ী হবো, রাশিয়া হবে মুক্ত ও সুখী একটি দেশ। সূত্র: বিবিসি ওয়েবসাইট

The Post Viewed By: 448 People

সম্পর্কিত পোস্ট