চট্টগ্রাম রবিবার, ২৯ জানুয়ারি, ২০২৩

সর্বশেষ:

১৬ জানুয়ারি, ২০২৩ | ১২:৩৫ অপরাহ্ণ

অনলাইন ডেস্ক

১৮ হাজার কর্মী ছাঁটাই করছে অ্যামাজন

বছরের শুরুতেই কর্মী ছাঁটাইয়ের ঘোষণা করেছিল অ্যামাজন। কর্মকর্তারা এরই মধ্যে ১৮ হাজার কর্মীকে বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

 

এদের মধ্যে এক হাজারই হচ্ছে ভারতীয় কর্মী। সম্প্রতি আনুষ্ঠানিক ভাবে এই ঘোষণার পর কান্নায় ভেঙে পড়েন কর্মচারীরা।

 

তবে ছাঁটাই হওয়া কর্মীদের ৫ মাসের বেতন দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে অ্যামাজন। নতুন থেকে শুরু করে অভিজ্ঞ, সব ধরনের কর্মী ছাঁটাই প্রক্রিয়া চালু করেছে।

 

এক কর্মচারী টুইটে লিখেছেন, ‘আমার টিমের ৭৫ শতাংশ কর্মী কাজ হারিয়েছেন। বাকি ২৫ শতাংশের মধ্যে আমি রয়েছি। কাজের উৎসাহ পাচ্ছি না। সহকর্মীদের অঝোরে কাঁদতে দেখছি অফিসে।’

 

ভারতের বেঙ্গালুর, গুরুগ্রামসহ একাধিক শহরের অফিস থেকে বিপুল পরিমাণে কর্মী ছাঁটাই শুরু হয়েছে। ছাঁটাইয়ের ইমেইল পাওয়া মাত্রই কর্মীরা লিঙ্কডইনসহ একাধিক অ্যাপে নতুন চাকরির খোঁজও শুরু করে দিয়েছেন।

 

এর আগে নভেম্বরে নিউইয়র্ক টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, অ্যামাজন শিগগিরই কর্মী ছাঁটাই করতে যাচ্ছে। যার সংখ্যাটা ১০ হাজার পর্যন্ত হতে পারে। অ্যামাজনের ঘোষণাটি এমন সময় এসেছে যখন আমেরিকায় ব্ল্যাক ফ্রাইডে (সবচেয়ে বড় বিক্রি উৎসব) শুরু হওয়ার কয়েকদিন বাকি আছে।

 

প্রতিবেদন অনুসারে, দুর্বল অর্থনীতির বিষয়টি বিবেচনায় আনলে কর্মী ছাঁটাই আশ্চর্যজনক নয়। যদি কেউ অ্যামাজনের তৃতীয়-প্রান্তিকের ব্যালেন্স শিটের দিকে নজর দেয়, দেখা যাবে নিট বিক্রয় ১৫ শতাংশ বেড়ে ১২৭.১ বিলিয়ন হয়েছে। কিন্তু এর অপারেটিং আয় গত বছরের একই ত্রৈমাসিকের ৪.৯ বিলিয়নের তুলনায় ২.৫ বিলিয়নে নেমেছে।

 

ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল অনুসারে, অ্যামাজনের আয় প্রত্যাশার চেয়ে ২-৪ শতাংশ কমেছে। ফলে প্রতিষ্ঠানটিকে কিছুটা কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে।

 

পূর্বকোণ/আরএ

 

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট