চট্টগ্রাম সোমবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

২৬ অক্টোবর, ২০২২ | ১০:৪৯ পূর্বাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

পরমাণু হামলা নিয়ে বাড়াবাড়ি হবে ‘গুরুতর ভুল’: বাইডেন

ইউক্রেনে ব্যর্থতার চক্রে আটকে আছে রাশিয়া। পশ্চিমা সামরিক সহায়তায় পুষ্ট ইউক্রেনের পাল্টা হামলার কারণে দখল করা এলাকাগুলো থেকে প্রায়ই পিছু হটছে রুশ সেনারা। এর জবাবে রাশিয়ার পরমাণু হামলার ঝুঁকিও দেখছেন অনেকে।

মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ইউক্রেনের সঙ্গে যুদ্ধে পারমাণবিক অস্ত্র ব্যবহারের বিরুদ্ধে রাশিয়াকে সতর্ক করেছেন। তিনি বলেছেন, এ ধরনের কোনো বাড়াবাড়ি করা হলে তা হবে একটি গুরুতর ভুল।
বুধবার (২৬ অক্টোবর) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে বার্তাসংস্থা এএফপি।

মূলত চলমান যুদ্ধে ইউক্রেন কথিত ডার্টি বোমা ব্যবহারের পরিকল্পনা করছে বলে অভিযোগ করেছে রাশিয়া। এই ধরনের পদক্ষেপ পরমাণু সন্ত্রাসবাদ বলে বিবেচিত হবে বলেও রাশিয়া জানিয়েছে। এছাড়া ইউক্রেনের এই পরিকল্পনা বাতিল করানোর জন্য জাতিসংঘের প্রতি আহ্বানও জানিয়েছে মস্কো।

অন্যদিকে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছেন, মস্কো তেজস্ক্রিয় পদার্থের বিস্ফোরক যন্ত্র দিয়ে এই ধরনের হামলার পরিকল্পনা করছে এবং (সেই ধরনের কোনো হামলার ঘটনার জন্য) কিয়েভকে দায়ী করতে চাইছে।

উভয় দেশের পাল্টাপাল্টি এই অভিযোগের বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মঙ্গলবার প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, তিনি মনে করেন- রাশিয়া ডার্টি বোমা হামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে যার দায় ইউক্রেনের ঘাড়ে চাপানো হবে। আর তাই বাইডেন সতর্ক করে বলেন: ‘কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্র ব্যবহার করলে রাশিয়া অবিশ্বাস্যভাবে গুরুতর ভুল করবে।’

রাশিয়া এই সপ্তাহে বলেছে, ইউক্রেন তার নিজের ভূখণ্ডে তথাকথিত ডার্টি বোমা ব্যবহার করতে পারে। মূলত ডার্টি বোমা হলো এমন একটি প্রচলিত বোমা যা তেজস্ক্রিয়, জৈবিক বা রাসায়নিক পদার্থে সজ্জিত থাকে এবং বিস্ফোরণের পর সেগুলো ছড়িয়ে পড়ে।

মঙ্গলবারও রাশিয়া জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে ইউক্রেন তার নিজের ভূখণ্ডে ‘ডার্টি বোমা’ ব্যবহার করার প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে অভিযোগ করে। তবে পশ্চিমা ও ইউক্রেনীয় কর্মকর্তারা এটিকে ভুল তথ্য এবং যুদ্ধের তীব্রতা আরও বাড়ানোর অজুহাত হিসাবে আখ্যা দিয়ে রাশিয়ার দাবি খারিজ করেছেন।

মঙ্গলবার বাইডেন বলেন, ‘আমরা নিশ্চিত করে বলছি না যে, রাশিয়া হামলা চালিয়ে ইউক্রেনের ঘাড়ে দোষ চাপাবে। আমরা এখনও এ বিষয়ে জানি না। তবে (রাশিয়া তা করলে) গুরুতর ভুল হবে।’

 

পূর্বকোণ/এসি

শেয়ার করুন