চট্টগ্রাম সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

৯ আগস্ট, ২০২২ | ১:৫৫ অপরাহ্ণ

অনলাইন ডেস্ক

আর নেই অভিনেত্রী-গায়িকা অলিভিয়া

ব্রিটিশ বংশোদ্ভূত অস্ট্রেলিয়ান অভিনেত্রী ও গায়িকা অলিভিয়া নিউটন-জন মারা গেছেন। দীর্ঘদিন ক্যানসারে ভুগছিলেন তিনি। মৃত্যুর সময় তার বয়স হয়েছিল ৭৩ বছর।

সোমবার (৮ আগস্ট) সকালে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় নিজের খামারবাড়িতে  পরিবার ও স্বজনদের সান্নিধ্যে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তার ইনস্টাগ্রামের পোস্টের সূত্রে বিবিসি এ খবর জানিয়েছে।

অলিভিয়া ১৯৭৮ সালের মিউজিক্যাল রোমান্টিক-কমেডি ছবি ‘গ্রিজ’-এ স্যান্ডি চরিত্রে অভিনয় করে ব্যাপক সাড়া ফেলেন। তাতে তার সঙ্গে ছিলেন মারকুটে অভিনেতা জন ট্রাভোলটা।

বিশ্বের নানা প্রান্তের শিল্পীরা অলিভিয়ার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন। 

অভিনেত্রী ও গায়িকা অলিভিয়া শুরুতে ছিলেন কান্ট্রি সিঙ্গার। তার রেকর্ড বিক্রি হয়েছে মিলিয়ন কপি।

১৯৭৮ সালের ‘গ্রিজ’ সিনেমায় তিনি গেয়েছিলেন ‘ইউ আর দ্য ওয়ান দ্যাট আই ওয়ান্ট’ ও ‘সামার নাইটস’। দুটোই তখন দারুণ হিট হয়।

অলিভিয়ার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে গায়ক রড স্টুয়ার্ট লিখেছেন, ‘তিনি নিখুঁত ও চমৎকার একজন ভদ্রমহিলা। তার মাঝে লুকিয়ে ছিল প্রথাগত অস্ট্রেলিয়ান নিগূঢ়তা।’

মার্কিন পরিচালক র‌্যান্ডাল ক্লেইসার লিখেছেন, ‘অলিভিয়া ও আমার বন্ধুত্ব ৪০ বছরের। এর মাঝে সে কখনও বদলায়নি। সবাই তাকে যেমনটা কল্পনা করতো, সে ঠিক তেমনই ছিল।’

যুক্তরাষ্ট্রের জনপ্রিয় টিভি হোস্ট অপরাহ উইনফ্রে বিবিসিকে বলেছেন, ‘ইতিবাচক শক্তি মানেই সেটা সংক্রামক। তোমাকে সবাই খুব মিস করবে অলিভিয়া।’

কাইলি মিনোগ, ডিওন ওয়ারউইকসহ আরও অনেক নামকরা শিল্পীও অলিভিয়া নিউটনের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন।

অলিভিয়ার জন্ম ১৯৪৮ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর। বাবা ছিলেন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ব্রিটিশ গুপ্তচর। মা ছিলেন জার্মানির নোবেলজয়ী বিজ্ঞানী ম্যাক্স বর্নের মেয়ে।

১৯৩৩ সালে নাৎসিদের হাত থেকে বাঁচতে অলিভিয়ার পরিবার আসে অস্ট্রেলিয়ায়।

গ্র্যামি পুরস্কার পাওয়া অলিভিয়া ১৯৭৪ থেকে ১৯৭৭ পর্যন্ত ইউএস টপ চার্টে এসেছিলেন সাতবার।

১৯৯২ সালে তার স্তন ক্যানসার ধরা পড়ে। সেই প্রভাব পড়ে তার কোমর ও পায়ে। পরে ক্যানসার রোগীদের সহায়তায় ‘অলিভিয়া নিউটন-জন ফাউন্ডেশন’ প্রতিষ্ঠা করেন তিনি।

সর্বশেষ ২০২০ সালে মুক্তি পায় অলিভিয়া অভিনীতি ‘দ্য ভেরি অ্যাক্সিলেন্ট মিস্টার ডান্ডি’। এর আগে ২০১১ সালে তিনি অভিনয় করেছিলেন ‘আ ফিউ বেস্ট ম্যান’ ছবিতে। এর আগে পরে ও মাঝে মূলত গানের জগতেই বেশি কাটিয়েছিলেন অলিভিয়া নিউটন। ২০১২-২০১৭ সাল অস্ট্রেলিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রে গেয়েছিলেন অনেকগুলো কনসার্টে। ২০১২ সালে ট্রাভোলটার সঙ্গে জোট বেঁধে প্রকাশ করেছিলেন চ্যারিটি অ্যালবাম ‘দিস ক্রিসমাস’।

গতবছরের জানুয়ারিতে প্রকাশ হয় অলিভিয়ার সবশেষ সিঙ্গেল ‘উইন্ডো ইন দ্য ওয়াল’। ওটা ছিল তার নিজের মেয়ে ক্লোয়ি লাতানজির সঙ্গে ডুয়েট। আইটিউনস-এর পপ মিউজিক বিভাগে রিলিজের সপ্তাহে এক নম্বরে ছিল গানটি।

 

পূর্বকোণ/আর

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট