চট্টগ্রাম রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

২২ জুলাই, ২০১৯ | ১১:১২ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

জাতিসংঘের আহ্বান প্রত্যাখান

ফিলিস্তিনিদের ঘরবাড়ি ভাঙা শুরু করেছে ইসরায়েল

জেরুজালেমের শহরতলিতে ফিলিস্তিনি বাড়িঘর গুঁড়িয়ে দিচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী। ফিলিস্তিনিদের বিক্ষোভ প্রতিরোধ ও আন্তর্জাতিক সমালোচনাকে উপেক্ষা করে ইসরায়েল সেনাবাহিনী আজ সোমবার (২২ জুলাই) ওই ঘরবাড়ি ভাঙতে শুরু করে ।
বুলডোজার নিয়ে পূর্ব জেরুজালেমের প্রান্তে অবস্থিত সুর বাহের গ্রামের ঘরবাড়ি ভাঙতে শুরু করেছে শত শত ইসরায়েলি সেনা ও পুলিশ। ফিলিস্তিনি এ গ্রাম এলাকাটি ১৯৬৭ সালে মধ্যপ্রাচ্য যুদ্ধে ইসরায়েল দখল করে নেয়। খবর রয়টার্সের।
ফিলিস্তিনিরা জেরুজালেমকে পবিত্র ভূমি বলে মনে করে যেখানে পাঁচ লাখ ইসরায়েলি ও তিন লাখ ফিলিস্তিনের বসবাস। ইসরায়েলের এ পদক্ষেপ জেরুজালেমকে ঘিরে দীর্ঘ বিবাদের বিষয়টিকে আরো জিইয়ে রাখবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ইসরায়েলের সুপ্রিম কোর্ট গত জুন মাসে এক আদেশে বলেছে, ওই ভবনগুলো নিষেধাজ্ঞা ভঙ্গ করে বানানো হয়েছে। বাড়িঘরগুলো থেকে লোকজনকে সরে যাওয়ার সময়সীমা গেল শুক্রবার শেষ হয়েছে।
হামাদা হামাদা নামের একজন কমিউনিটি নেতা বলেন, রাত দুইটা থেকে লোকজনকে জোর করে বাড়িঘর থেকে বের করে দেওয়া হয় ও সেগুলো গুঁড়িয়ে দেওয়ার জন্য ইসরায়েলি বাহিনী বিস্ফোরক দ্রব্য পোঁতা শুরু করে।
এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে ফিলিস্তিন স্বাধীনতা সংস্থা এক বিবৃতিতে ইসরায়েলি আদালতকে অভিযুক্ত করে জানায়, ফিলিস্তিনি বাড়িঘর ভেঙে ইসরায়েলি দখলকে আরও সক্ষম করে তুলতে নজির স্থাপন করছেন আদালত।
অনেক আগে থেকেই ভবন ভাঙার পরিকল্পনা হতে সরে আসার জন্য ইসরায়েল কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানিয়ে আসছিলেন জাতিসংঘের মানবকল্যাণবিষয়ক সমন্বয়কারী জেমি ম্যাকগোল্ডরিকসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা।

পূর্বকোণ/রাশেদ

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 272 People