চট্টগ্রাম শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

সর্বশেষ:

১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ | ৪:২০ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মিয়ানমারে সেনা অভ্যুত্থান: জনগণকে বিক্ষোভে নামার আহবান এনএলডির

মিয়ানমারের জনগণের সে দেশের সামরিক অভ্যুত্থান না মেনে বিক্ষোভে নামার আহবান জানিয়েছেন দেশটির ক্ষমতাসীন দল ন্যাশনাল লীগ ফর ডেমোক্রেসির (এনএলডি)। সোমবার (১ ফেব্রুয়ারি) দলটির ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এ সংক্রান্ত একটা বিবৃতি প্রকাশ করা হয় বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

সেখানে বলা হয়, দেশের জনগণের সামরিক অভ্যুত্থান মেনে নেয়া উচিত নয় এবং এর বিরুদ্ধে অবশ্যই জনগণের বিক্ষোভ করা উচিত।
তবে সু চির নাম নিয়েই এসব বিবৃতি দেয়া হলেও সেখানে সু চির স্বাক্ষর ছিল না।

এনএলডির চেয়ারম্যান উইন হেইনের লেখা সে বিবৃতিকে নির্ভরযোগ্য এবং এটি সু চির ইচ্ছার প্রতিফলন বলেই উল্লেখ করা হয়েছে।এ বিষয়ে উইন হেইন বলেন, আমার জীবনের দিব্যি দিয়ে বলছি এটা অং সান সুচির নির্ভরযোগ্য বিবৃতি, যা তিনি জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

সু চির পক্ষ থেকে ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘এই সামরিক অভ্যুত্থান মেনে না নিতে আমি লোকজনকে আহবান জানাচ্ছি। আন্তরিকভাবে সবাই এই বিক্ষোভের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলুন।’

এদিকে, মিয়ানমারে সব ধরনের আর্থিক কার্যক্রম বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটির বিভিন্ন ব্যাংক। সোমবার দেশজুড়ে জরুরি অবস্থা জারি এবং ইন্টারনেট সংযোগ দুর্বল হয়ে পড়ার পরই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, আজ সকালে মিয়ানমারে এক বছরের জন্য জরুরি অবস্থা জারি করে দেশটির সেনাবাহিনী। ক্ষমতাসীন দল ন্যাশনাল লীগ ফর ডেমোক্রেসির (এনএলডি) প্রধান অং সান সু চি, দেশটির প্রেসিডেন্ট উইন মিন্টসহ বেশ কয়েকজনকে আটকের পর পরই জরুরি অবস্থা জারি করা হয়।

জরুরি এ অবস্থার মধ্যেই রাজধানী নাইপিদোতে মোবাইল ফোন ও রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন এবং রেডিওর প্রচার বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

পরবর্তীতে দেশটির সামরিক বাহিনী নিয়ন্ত্রিত টেলিভিশন মায়াবতির সম্প্রচার চালু রয়েছে। সোমবার সেনাবাহিনীর ক্ষমতা গ্রহণের বিষয়টি মায়াবতির মাধ্যমে সম্প্রচার করা হয়েছে। টেলিভিশনের এক বিবৃতিতে জানানো হয় যে, কমান্ডার-ইন-চিফ মিন অং হ্লেইং দেশের ক্ষমতা গ্রহণ করেছেন।

পূর্বকোণ/এএ

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 230 People

সম্পর্কিত পোস্ট