চট্টগ্রাম রবিবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

২০ ডিসেম্বর, ২০২০ | ১০:০১ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

ফুলকপির অনন্য ৫ গুণ

শীতকালীন সবজির মধ্যে অন্যতম ফুলকপি। অর্থনৈতিকভাবে ফুলকপির চাহিদা এবং উচ্চ পুষ্টিমানের জন্য এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ সবজি। রান্না কিংবা কাঁচা যেকোনো উপায়ে খাওয়া যায় ফুলকপি। এতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ, বি, আয়রন, ফসফরাস, পটাশিয়াম, ক্যালসিয়াম প্রভৃতি রয়েছে। এগুলো শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে ক্যান্সারসহ বিভিন্ন রোগের হাত থেকে আমাদের রক্ষা করে। কোনো কোনো দেশে প্রধান খাদ্য হিসেবে ফুলকপি বেশ জনপ্রিয়।

এই সবজি প্রথম ইউরোপে বিস্তার লাভ করে ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চল থেকে। বর্তমানে ফুলকপি ভারতে সবচেয়ে বেশি উৎপাদিত হয়ে থাকে। ভারত ছাড়াও চীন, ফ্রান্স, ইতালি, ইউকে, ইউএসএ, স্পেন, পোল্যান্ড, জার্মানী, পাকিস্তান এসব অঞ্চলেও এর ব্যাপক উৎপাদন হয়ে থাকে। ১৮৮২ সালে ভারতে ফুলকপি প্রথম বিস্তার লাভ করে। বাংলাদেশেও ফুলকপির চাষ দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। ঢাকা, যশোর, রাজশাহী, রংপুর, টাংগাইল, কুষ্টিয়ায় প্রধানত চাষ করা হয়।

বিজ্ঞাপন

ফুলকপির গুণাগুণ-

  • ক্যান্সার প্রতিরোধ করে: মূত্রথলি ও নারীদের প্রোস্টেট, স্তন ও ডিম্বাশয় ক্যান্সার প্রতিরোধে ফুলকপির ভূমিকা অপরিসীম। এতে সালফোরাফেন নামে এমন এক উপাদান রয়েছে, যা ক্যান্সার প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। এই উপাদানটি ক্যান্সারের স্টেম সেল ধ্বংস করে এবং বিভিন্ন ধরনের টিউমারের বৃদ্ধি প্রতিহত করে।
  • হজমে সাহায্য করে: ফুলকপিতে প্রচুর এন্টিঅক্সিডেন্ট ও সালফার-জাতীয় উপাদান রয়েছে, যা খাবার হজম প্রক্রিয়ায় সাহায্য করে। এছাড়া এর ফাইবার খাবার হজম করতেও কার্যকর ভূমিকা রাখে।
  • হৃদযন্ত্র ভালো রাখে: ফুলকপি হৃদযন্ত্র ভালো রাখে। এর সালফোরাফেন নামের উপাদানটি উচ্চ রক্তচাপ কমায় এবং কিডনি সুস্থ রাখে। শুধু তাই নয়, ধমনীর ভেতরে প্রদাহ রোধেও কাজ করে ফুলকপি।
  • দহন প্রক্রিয়া নিয়ন্ত্রণ করে: ফুলকপিতে ‘এন্টি-ইনফ্লেমেটরি নিউট্রিয়েন্টস’ নামে এমন এক উপাদান রয়েছে; যা শরীরের দহন প্রক্রিয়াকে নিয়ন্ত্রণে রাখে। ফলে ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা একেবারেই কমে যায়।
  • মস্তিষ্ক সুস্থ রাখে: ফুলকপিতে ভিটামিন বি কমপ্লেক্স ও ভিটামিন-বি রয়েছে, যা মস্তিষ্ক সুস্থ রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। কেননা ভিটামিন বি কমপ্লেক্স মস্তিষ্কের কগনিটিভ প্রক্রিয়ায় সাহায্য করে। এতে স্মৃতিশক্তি বেড়ে যায়। উচ্চ রক্তচাপ, হাই কোলেস্টেরল ও ডায়াবেটিসের রোগীরা নিঃসঙ্কোচে ফুলকপি খেতে পারেন। কেননা ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ এবং কোলেস্টেরল কমাতে এই সবজিটি আমাদের বন্ধু।

 

 

পূর্বকোণ/মামুন

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 172 People

সম্পর্কিত পোস্ট