চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৩ অক্টোবর, ২০১৯ | ১:১১ পূর্বাহ্ণ

চাই সুস্থ রাজনীতির চর্চা

রাজনীতি হচ্ছে একটি আদর্শিক শব্দ। যে আদর্শ অনুসারীকে করবে ন্যায়ের পথে চলা, নিষ্ঠা, একাগ্রতা ও অন্যায়ের প্রতিবাদ করা। তবে সেকালের রাজনীতি আর একালের রাজনীতি আকাশ-পাতাল ব্যবধান। রাজনীতি করেছিল মহাত্মা গান্ধী, নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসু ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। শাসন-শোষণ থেকে মেহনতী মানুষের মুক্তির জন্য তাঁদের অবদান অনস্বীকার্য।

বর্তমানের রাজনীতিতে আদর্শ, নীতিবাক্যের দরকার নেই জনগণের আশা-আকাক্সক্ষা, ভালো-মন্দের প্রয়োজন নেই। বর্তমানে রাজনৈতিক নেতা-কর্মীর পদ-পদবী হচ্ছে ব্যবসার মূলধন। যেভাবে হোক যত টাকা লাগে দলের যেকোনো একটি পদ দরকার।

পদের মাধ্যমে ব্যবসার শুভ সূচনা। দলের বদনাম হোক, দল উচ্ছন্নে যাক তা দেখার অবকাশ নেই। রাজনীতির ব্যবসা করে শতকোটি টাকার মালিক এগুলো কোন ব্যাপারই না। বর্তমান রাজনীতি মানে টাকার পাহাড় গড়া ও আধিপত্য বিস্তার করা।

দেশের ব্যাংকে টাকা বেশি রাখলে চোখে পড়বে, তাই সবাই বিদেশে টাকা পাচারে ব্যস্ত। বাংলাদেশের স্বপ্ন নিয়ে স্বাধীনতা যুদ্ধে শহীদ মুক্তিযোদ্ধারা নিজের প্রাণ বিসর্জন দিয়েছিল কি এই বাংলাদেশের জন্য ? যতদিন দলের মধ্যে জবাবদিহির রাজনীতি চর্চা হবে না, ততদিন যে দলই ক্ষমতায় আসুক না কেন জনগণের আকাক্সক্ষা পূরণ হবে না।

শ্রীধর দত্ত
চট্টগ্রাম

The Post Viewed By: 86 People

সম্পর্কিত পোস্ট