চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

২০ মে, ২০১৯ | ২:৪৩ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাজার এখন লিচুর

জ্যৈষ্ঠ মানেই মধু মাস। নানা রকম ফলের সমারোহ। আম, জাম, কাঁঠাল ও লিচু স্বাদ নিয়ে আসা এ মাসকে তাই মধু মাস বলা হয়। এক কথায় বাজার এখন হরেক রকম মৌসুমি ফলে ভরপুর। ফলের দোকানিরা দেশীয় ফলের পসরা সাজিয়ে বসেছেন নগরজুড়ে। তবে লিচুর সরবরাহ প্রচুর। গরমের শুরুতেই ফলটি বাজারে আসে। এখন আবার নগরীর সবগুলো বাজার ও ভ্যানগাড়িতে দেখা যাচ্ছে এ ফলটি। গরমের সময়ে লিচুর সুমিষ্ট রসালো স্বাদ ছোট বড় সকলেরই পছন্দ। বিশেষ করে রাজশাহী ও খাগড়াছড়ির চায়না লিচু সবার কাছে খুব প্রিয়। মুখে দিতেই রসে ভরে যায়। বাজারে এ দুই জাতের লিচুর চাহিদা ক্রেতাদের কাছে অনেক বেশি। চট্টগ্রামের পাহাড়ি এলাকা রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি, বান্দরবান ও দক্ষিণ চট্টগ্রামের বাঁশখালী থেকেও আসে লিচু। বাজারে

প্রতি ১০০ পিস লিচু ১৫০ টাকা থেকে ৩৫০ টাকায় বিক্রি করছে। রাজশাহীর লিচু ১০০ পিস ২৮০ টাকা থেকে ৩০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। চায়না লিচুও একই দামে বিক্রি হচ্ছে। তবে নগরীর কাজীর দেউড়ি বাজার, চকবাজার সুপার শপ, স্বপ্ন সুপার শপ, খুলশী মার্ট ও মিনা বাজারে এখনো ১০০ পিস লিচু ৩০০ থেকে ৩৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আবার ভ্যানে বিক্রি করা লিচুর দাম তুলানামূলক কম আছে। ১৫০ থেকে ২০০, ২৫০ টাকায় বিক্রি করছে। রাঙামাটি, বান্দরবান ও বাঁশখালীর লিচু ১৫০ থেকে ২০০, ২২০, ২৩০ টাকায় বিক্রি করছে। এ ফলটি খেতে যেমন সুস্বাদু, তেমনি আছে প্রচুর ভিটামিন। ত্বক, চুল ও স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারী এ ফলটি। শরীরের জন্য অত্যাবশ্যকীয় পুষ্টি উপাদানগুলোর মধ্যে প্রায় সবগুলোই আছে। লিচুতে প্রচুর পানি ও ফাইবার আছে। এছাড়া লিচুতে ক্যালোরি না থাকায় খুব কম ফ্যাট থাকে বলে মিষ্টি হলেও এই ফল ওজন কমাতে সাহায্য করে। লিচুতে গুরুত্বপূর্ণ একটি উপাদান ক্যান্সার বিরোধী প্রভাব আছে। গবেষণায় দেখা গেছে যে, লিচুতে শক্তিশালী এন্টিঅক্সিডেন্ট ও ক্যান্সার বিরোধী প্রভাব আছে। বিশেষ করে ব্রেস্ট ক্যান্সার কোষের এর উপর ভালো প্রভাব লক্ষ্য করা গেছে। লিচুর এন্টিঅক্সিডেন্ট স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। লিচুতে অলিগোনল নামক উপাদান থাকে যা নাইট্রিক অক্সাইডের উৎপাদনকে উৎসাহিত করে। নাইট্রিক অক্সাইড রক্তনালীকে প্রসারিত করে বলে রক্ত চলাচল, সঠিকভাবে রক্ত জন্মাতে সাহায্য করে। এর ফলে রক্ত পাম্প করতে হার্টের বেশি চাপ প্রয়োগ করতে হয়না।
পুষ্টিবিদরা বলেন, মৌসুমি ফল লিচু ভিটামিন ও খাদ্যশক্তির অন্যতম উৎস। এতে রয়েছে মানব শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় খনিজ উপাদান। শ্বেতসার এবং ভিটামিন সি’র ভালো উৎস। ছোট বড় সব বয়সের মানুষই এই সুস্বাদু ফল খেতে পারে। লিচুতে রয়েছে সামান্য পরিমাণে প্রোটিন ও ফ্যাট যা মানব দেহের জন্য প্রয়োজন। প্রতি ১০০ গ্রাম লিচুতে ১.১ গ্রাম প্রোটিন এবং ০.২ গ্রাম ফ্যাট আছে। এছাড়া লিচুতে ০.০২ গ্রাম ভিটামিন বি ১ এবং ০.০৬ গ্রাম বি ২ রয়েছে। এছাড়াও এতে কিছু পরিমাণে খনিজ লবণ থাকে। প্রতি ১০০ গ্রাম লিচুতে ০.৫ গ্রাম খনিজ লবণ আছে। সিআরবির লিচু বিক্রেতা মো. শামীম বলেন, বাজারে রাজশাহী ও খাগড়াছড়ির লিচুর চাহিদা বেশি। এ দুই অঞ্চলের লিচু যেমন স্বাদে ভরা, তেমনি লিচুর গায়ে শায় বড় আর বিচিও ছোট হয়। এখানে লিচু কিনতে আসেন সিয়াম এফ আর। তিনি বলেন, লিচুগুলো দেখতে খুব সুন্দর। আর সিজনাল ফল হিসেবে লিচু পরিবারের সবার পছন্দ।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 367 People

সম্পর্কিত পোস্ট