চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

১৯ জানুয়ারী, ২০২০ | ৪:২৬ পূর্বাহ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক

উপজেলা চেয়ারম্যান-ভাইস চেয়ারম্যান সম্মেলন

এলজিইডি মন্ত্রীর কাছে বাজেট ও ক্ষমতায়নের দাবি

পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, উপজেলা পর্যায়ে স্থানীয় সরকার ব্যবস্থার উন্নয়ন না হলে দেশ উন্নত হবে না। যেকোনো নির্বাচনী প্রতিনিধিদের সহযোগিতা ছাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্নের বাংলাদেশ গড়া সম্ভব নয়। তাই সবাইকে যে যার জায়গা থেকে দেশের উন্নয়নের জন্য দায়িত্ব পালন করতে হবে। উপজেলা ইউনিয়ন পরিষদ সরকারের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। বর্তমান সরকার শহরের পাশাপাশি গ্রাম উন্নয়নেও কাজ করছে। তাই যেকোনো সমস্যা হঠাৎ করে সমাধান হয় না। এসব সমস্যা অতিক্রম করলেই একদিন দেশ উন্নত হবে। গতকাল নগরীর এলজিইডি ভবন মিলনায়তনে বাংলাদেশ উপজেলা পরিষদ এসোসিয়েশন চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিটি আয়োজিত সম্মেলনে তিনি একথা বলেন। বাংলাদেশ উপজেলা পরিষদ এসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি ও রাউজান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ কে এম এহছানুল হায়দর চৌধুরী বাবুলের সভাপতিত্বে সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম। উদ্বোধক ছিলেন বাংলাদেশ উপজেলা পরিষদ এসোসিয়েশনের সভাপতি হারুন অর রশিদ হাওলাদার। প্রধান আলোচক ছিলেন বাংলাদেশ উপজেলা পরিষদ এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম বীরু ও বিশেষ অতিথি ছিলেন স্থানীয় সরকারের সচিব হেলাল উদ্দিন আহমেদ ও প্রধান প্রকৌশলী সুশংকর চন্দ্র আচার্য্য। এসময় জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন, পতাকা উত্তোলন ও বেলুন উড়িয়ে

বেলা তিনটায় এলজিইডি ভবনের সামনে সম্মেলনের উদ্বোধন করা হয়। পরবর্তীতে মঞ্চে অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করে ও ক্রেস্ট প্রদান করেন বিভিন্ন উপজেলার চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানরা। সম্মেলনে চট্টগ্রাম বিভাগের ১০৩ উপজেলার চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান উপস্থিত ছিলেন। এসময় তারা তাদের কার্য ক্ষমতার বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। বিভিন্ন উপজেলার প্রতিনিধিরা তাদের বক্তব্যে বলেছেন, তারা নিজ এলাকার জনগণ দ্বারা নির্বাচিত প্রতিনিধি হয়েও তারা তাদের জনগণের জন্য কিছুই করতে পারছে না। এ ক্ষেত্রে তারা জেলা ইউনোদের কারণে কোনো ক্ষমতাই পাচ্ছে না। জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়েও নামমাত্র ক্ষমতা পেয়েছেন বলে অভিযোগ করেন। উপজেলা প্রতিনিধিদের সরকার যে ১৭টি কার্যক্ষমতা প্রদান করেছে সেগুলোর কার্যকর করার হোক। উপজেলাকে শহরের মত উন্নয়ন করতে আমাদেরকেও বিভিন্ন কাজের বাজেট দেয়া হোক। আমরা তার মাধ্যমে জনগণের ভোটের মর্যাদা রাখতে পারবো। এটি আমাদের অধিকার। কিন্তু আমাদের এ অধিকার থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাগণ বঞ্চিত করছেন। সরকারের পক্ষ থেকে পাওয়া যেকোনো কাজের বরাদ্দ তারা আমাদের জানান না। ঠিকমত বেতন ভাতাও পাই না। নেই কোনো সুযোগ-সুবিধা। গ্রামকে নগরের মত উন্নয়ন করেতে হলে আমাদেরও কিছু ক্ষমতা ও কাজের সুযোগ দিতে হবে বলে উপজেলা প্রতিনিধিরা দাবি জানান।

The Post Viewed By: 57 People

সম্পর্কিত পোস্ট