চট্টগ্রাম বুধবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২১

এই সেই খুঁটি, যেখানে ওঠে আত্মহত্যার চেষ্টা করে সেলিম। ইনসেটে আত্মহত্যার চেষ্টাকারী সেলিম

১৮ মে, ২০১৯ | ১১:৩৫ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

আজান শুনে আত্মহত্যা থেকে ফিরলো যুবক

হ্যান্ড মাইকে দেয়া হুজুরের আজানের ধ্বনি শুনে মৃত্যুপথ বেছে নেয়া এক যুবক নেমে এলো আত্মহনন না করেই। জন্মদাত্রী মায়ের সাথে অভিমান করে এক লাখ ৩২ হাজার ভোল্টের বৈদ্যুতিক খুঁটি বেয়ে আত্মহত্যা করার সিদ্ধান্ত নেয় সেলিম (১৮)। এ সময় যুবকটিকে উদ্ধারে এগিয়ে আসে ফায়ার সার্ভিস, বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) ও থানা পুলিশসহ স্থানীয়রা। তবে শত চেষ্টা করেও আত্মহত্যার চেষ্টাকারী যুবকটিকে নামাতে পারছিলো না উদ্ধার কাজে অংশ নেয়া সংস্থাগুলো। সর্বশেষ হ্যান্ড মাইকে দেয়া হুজুরের আজান শুনে মৃত্যু থেকে মুখ ফিরিয়ে খুঁটি বেয়ে নিচে নেমে আসে যুবকটি।

আজ শনিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে নগরীর খুলশী থানাধীন ফয়স’ লেক রোডস্থ ইম্পেরিয়াল হাসপাতালের পাশে থাকা ঝর্ণা পাহাড়ে এ ঘটনা ঘটে।

আত্মহত্যার চেষ্টাকারী যুবক সেলিম (১৮) ফেনী জেলার ছাগলনাইয়া উপজেলার সিংহ নগর গ্রামের আব্দুল কাদেরের ছেলে। যুবকটি বলেন, দীর্ঘ ১২ বছর পর মায়ের সাথে দেখা করেন তিনি। তবে তার মা সেলিনা বেগম তাকে চিনতে না পারায় আত্মহত্যার চেষ্টা করেন তিনি। আর আত্মহত্যার পথ হিসেবে বেছে নেন ঝর্ণা পাহাড়ের পিডিবি’র লাখ ভোল্টের বৈদ্যুতিক খুঁটিটি।

আগ্রাবাদ ফায়ার স্টেশনের স্টেশন অফিসার ইফতেখার উদ্দিন বলেন, ‘বৈদ্যুতিক খুঁটি বেয়ে এক যুবক আত্মহত্যার চেষ্টা করছে এমন সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধারকারী দল। এ সময় যুবকটিকে আত্মহত্যার হাত থেকে বাঁচাতে বেশ কয়েকবার অনুরোধ করেও কোন ফল পাওয়া যায়নি। পরে হ্যান্ড মাইকে দেয়া আজানের ধ্বনি শুনে যুবকটি নিচে নেমে আসে।’

খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রণব চৌধুরী পূর্বকোণকে বলেন, যুবকটি মানসিক বিকারগ্রস্ত। সে একটি বৈদ্যুতিক খুঁটিতে ওঠে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। পরে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা তাকে উদ্ধার করে। শুনেছি তাকে নামাতে হ্যান্ড মাইকে আজান দেয়া হয়েছিল। আর সেই আযান শুনে যুবকটি আত্মহনন না করে ফিরে আসে।

যুবকটিকে আদলতে প্রেরণের মাধ্যমে নিরাপদ হেফাজতে রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 709 People

মন্তব্য দিন :

সম্পর্কিত পোস্ট