চট্টগ্রাম সোমবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২০

৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ | ৪:৫৫ পূর্বাহ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক

আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় ক্রমেই সক্ষমতা হারাচ্ছে বাংলাদেশের গার্মেন্টস

দৈনিক পূর্বকোণ আয়োজিত এক ‘টেবিল টক’-এ গার্মেন্টস পণ্য রপ্তানিকারকগণ বলেছেন, অবকাঠামোগত সুবিধার অভাবসহ নানা সমস্যার কারণে আর্ন্তজাতিক প্রতিযোগিতায় ক্রমেই বাংলাদেশের পোশাক শিল্প সক্ষমতা হারাচ্ছে। বর্তমানে প্রায় ৪০ শতাংশ রপ্তানিকারক উৎপাদন ব্যয়ের নিচে রপ্তানি আদেশ নিচ্ছে। প্রায় ৮৭ শতাংশ বিদেশী ক্রেতা পণ্য মূল্য বাড়ায়নি। উৎপাদন ব্যয়ের চেয়েও কম দামে ৫০ শতাংশ কারখানা পণ্য বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছে।

আক্ষেপ প্রকাশ করে রপ্তানিকারকগণ বলেন, নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যে রপ্তানি করতে না পারায় স্টকলটসহ অর্ডার বাতিল হয়ে বহু গার্মেন্টস কারখানা রুগ্ন শিল্পে পরিণত হচ্ছে। এই অবস্থার উন্নতিতে এখনই উদ্যোগী না হলে ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ নিয়ে যে অহংকার আমরা করি, তার অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখা যাবে না। চাকরি হারিয়ে লাখ লাখ গার্মেন্টস শ্রমিক পথে বসবে। নানা ঘাত- প্রতিঘাত সয়ে যেসব উদ্যোক্তা এই শিল্পকে ৩০ বছর ধরে টিকিয়ে রেখেছে, তারা অস্তিত্ব সংকটে পড়বে।

গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে পূর্বকোণ সেন্টারের আলহাজ ইউসুফ চৌধুরী কনফারেন্স হলে আয়োজিত ‘সংকটে গার্মেন্টস শিল্প : অনাকাক্সিক্ষত ঝুঁকি’ শীর্ষক টেবিল টক-এ বক্তারা এ আশঙ্কার কথা বলেন। একই সঙ্গে এই শিল্পকে টিকিয়ে রাখতে উপযোগী পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানান।

বিজিএমইএ’র সাবেক প্রথম সহ সভাপতি নাসির উদ্দিন চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত টেবিল টক-এ অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিজিএমইএ’র প্রথম সহ সভাপতি এম এ সালাম, আইবিএফবি, চট্টগ্রাম চ্যাপ্টারের সভাপতি এস এম আবু তৈয়ব ও বিকেএমইএ’র স্ট্যান্ডি কমিটি অন চিটাগাং এফেয়ার্সের চেয়ারম্যান ও সাবেক পরিচালক শওকত ওসমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন দৈনিক পূর্বকোণ সম্পাদক ডা. এ. রমিজউদ্দিন চৌধুরী।

(টেবিল টক-এর বিস্তারিত প্রতিবেদন প্রকাশিত হবে দৈনিক পূর্বকোণ’র আগামী রবিবারের সংখ্যায়।)

The Post Viewed By: 48 People

সম্পর্কিত পোস্ট